প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] অনলাইন ব্যবস্যায় ট্রেড লাইসেন্স হলে, অনৈতিক কার্যক্রম বন্ধ হবে: বাবলু কুমার সাহা

মিনহাজুল আবেদীন: [২] রোববার সময় টিভির এক প্রতিবেদনে জাতীয় ভোক্তা সংরক্ষণ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক বাবলু কুমার সাহা বলেন, ই-কর্মাসের নামে ঠিকানাবিহীন পোর্টালে ভরে গেছে। তারা বিভিন্ন ধরনের প্রচারণা চালায়। ভোক্তারা না বুঝে তাদের সঙ্গে চুক্তিবদ্ধ হয়ে বিভিন্নভাবে ঠকছে।

[৩] তিনি বলেন, অনলাইন ব্যবসা লাইসেন্স এর আওতায় আসলে উভয় পক্ষ উপকৃত হবে। ব্যবসা বাণিজ্যের প্রসার ঘটবে।

[৪] ই-ক্যাবের সহ-সভাপতি শাহাব উদ্দিন শিপন বলেন, ২০২৬ সালে ১ হাজার কোটি টাকার বাজার ছিলো। ২০১৯ এটি ৬-৭ হাজার কোটি টাকা মার্কেট ধরে। ২০২০ এসে ১৬ হাজার কোটি টাকার মার্কেটে উত্তীর্ণ হয়েছে। এই নীতিমালাগুলো তৈরি হলে ক্রেতারা নির্দিষ্ট একটি প্লার্টফরমে আসবে এবং বিক্রিও বাড়বে। যারা প্রকৃত ব্যবসায়ী তাদের জন্য এটি উত্তম ব্যবসা হবে।

[৫] অর্থনীতিবিদ ড. নাজনীন আহমেদ বলেন, রেজিট্রেশন এবং ভ্যাট নিবন্ধন করার আগে একটি অনলাইন বিজনেস আইডি তৈরি করা যেতে পারে। তার ব্যবসা যদি পাঁচ বছর বা সাত বছর টিকে যায় তবেই সেটি নিবন্ধন বা ভ্যাটের আওতায় পড়বে। তাহলে নারী, ছাত্র-ছাত্রী ও যারা ক্ষুদ্র উদ্যোক্তা রয়েছেন। তাদের ব্যবসার ক্ষেত্রে কোন সমস্যা হবে না। সম্পাদনা: রাশিদ