প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] খাসোগজি হত্যার দায়ে সৌদি যুবরাজের ওপর নিষেধাজ্ঞার বিল আনলেন মার্কিন আইনপ্রণেতা ইলহান ওমর

লিহান লিমা: [২]মার্কিন কংগ্রেসের প্রতিনিধি পরিষদের সদস্য ইলহান ওমর স্থানীয় সময় মঙ্গলবার সাংবাদিক জামাল খাসোগজি হত্যায় সংশ্লিষ্টতার দায়ে সৌদি যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমানের ওপর নিষেধাজ্ঞা চাপাতে একটি বিল কংগ্রেসে উত্থাপন করেন। আল জাজিরা

[৩]এর আগে যুক্তরাষ্ট্রের জাতীয় তদন্ত কমিটির প্রতিবেদনে উঠে আসে, সৌদি যুবরাজই ২০১৮ সালে তুরস্কের ইস্তাম্বুলের দূতাবাসে খাসোগজিকে হত্যার পরিকল্পনা করেছিলেন।

[৪]বিবৃতিতে মিনেসোটার ডেমোক্রেট ইলহান ওমর বলেন, ‘এটি আমাদের মানবতার পরীক্ষা। যদি যুক্তরাষ্ট্র সত্যিই বাক-স্বাধীনতা, গণতন্ত্র এবং মানবাধিকারকে সমর্থন করে তবে মোহাম্মদ বিন সালমানের ওপর নিষেধাজ্ঞা না দেয়ার কোনো কারণ থাকতে পারে না। কারণ আমাদের তদন্ত প্রতিবেদনে প্রমাণিত হয়েছে খাসোগজি হত্যায় তার স্পষ্ট সম্পৃক্ততা ছিলো।’

[৫]আরেক ডেমোক্রেট প্রতিনিধি টম মালিনোস্কি সৌদিআরবকে দায়বদ্ধতার আওতায় আনা ও যুবরাজের ওপর ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা দেয়ার আহ্বান জানিয়ে বলেন, ‘তার ওপর নিষেধাজ্ঞা না দেয়া মার্কিন প্রশাসনের দুর্বলতাই পরিচয় হবে। আমরা যদি তাকে অভিযুক্তই করতে থাকি তবে তাকে কেনো জবাবদিহিতার আওতায় আনবো না। বিশ্বকে এটি জানাতে হবে, যুক্তরাষ্ট্রে কোনো প্রেসিডেন্ট বা রাজপুত্র আইনের উর্ধ্বে নয়।’

[৬] সৌদি যুবরাজের ওপর নিষেধাজ্ঞা চাপানোর এই আহ্বান মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন ও পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অবস্থানের সম্পূর্ণ বিপরীত। যুবরাজকে কোনো শাস্তি দিতে অস্বীকৃতি জানিয়ে মার্কিন পররাষ্ট্রদপ্তরের মুখপাত্র নেড প্রাইস সোমবার এক বিবৃতিতে জানিয়েছেন, ‘বাইডেন প্রশাসন সৌদি-যুক্তরাষ্ট্র সম্পর্কে চিড় ধরাতে চায় না।’

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত