প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

রাত জাগলে যা করবেন

ডেস্ক রিপোর্ট: রাত জেগে কাজ বা পড়াশোনা করতে পছন্দ করেন অনেকেরই। অনেকে আবার দেশে বাইরে সংস্থার সঙ্গে সময় মিলিয়ে কাজ করছেন। সঙ্গত কারণে সময়ের হেরফের তো হচ্ছেই। সেক্ষেত্রে বেশ কিছু মতামত দিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা। কারণ রাত জাগলে অনেকের শরীর খারাপ হয়ে থাকে। সময় টিভি

বিশেষজ্ঞদের মতে, এর নানা ক্ষতিকর প্রভাব পড়ে শরীরে। কারণ দীর্ঘদিন একটানা রাত জাগলে ঘুম নষ্ট হয়। তখন দিনের বেলায় পর্যাপ্ত ঘুমালেও শরীর খারাপ লাগে। এছাড়াও দীর্ঘদিন ধরে রাত জেগে কাজ করলে মেজাজ গরম, কাজে মন না লাগা এসব সমস্যা দেখা দেয়। সকালে উঠে শরীরচর্চার জন্য কোনো উৎসাহও থাকে না।

অনেকে আবার রাত জাগলে বিভিন্ন ধরনের খাবার খেতে থাকেন। এতে ওজন বাড়ার সম্ভাবনা বাড়ে। এছাড়া বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে নানা ধরনের রোগের প্রকোপও বাড়ে। দীর্ঘদিন ধরে রাত জাগলে আবার রাতে ঘুমের অভ্যাস করাও কঠিন হয়ে পড়ে। এ কারণে রাত জাগলে খাবারের ব্যাপারে বাড়তি সতর্ক থাকা প্রয়োজন। বিশেষ করে তেল-মশলা, কফি জাতীয় খাবার ত্যাগ করা উচিত। এছাড়াও সুস্থ থাকতে খাদ্য তালিকায় কিছু খাবার যোগ করা দরকার।

যেমন-

পানি : বেশি পরিশ্রম করলে শরীর থেকে পানি বেরিয়ে যায়। এমন কী বসে কাজ করলেও পর্যাপ্ত পানির প্রয়োজন হয়। আর তাই রাতে কাজ করলে এক ঘণ্টা পর পর এক গ্লাস পানি খান। এতে শরীর পানিশূন্য হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে না।

ঘি : যাদের কোলেস্টেরল আছে তারা অবশ্যই ঘি এড়িয়ে চলুন। কিন্তু যারা সুস্থ স্বাভাবিক তারা রাতের রুটি বা ভাতে এক চামচ ঘি খেতে পারেন। ঘি শরীরকে ভেতর থেকে সুস্থ রাখে। শরীরে আর্দ্রতা বজায় রাখে। তবে ঘি এর পরিবর্তে টক দইও খেলেও শরীর সুস্থ থাকে।

বাদাম : রাত জেগে কাজ করার সময় ক্ষিদে পেলে কফি বা চকোলেটের পরিবর্তে কাজু বাদাম কিংবা পেস্তাবাদাম খেতে পারেন। এতে পেট ভরবে আর শরীরও ভালো থাকবে। সেই সঙ্গে ঘুমও ভালো হয়। আর কাজের মাঝে বাদাম খেলে মনও ভালো থাকে।

খেজুর ও খেজুরের গুড় : এখন খেজুরের গুড় পাওয়া যাচ্ছে। তাই গুড় দিয়ে রুটি খেতে পারেন। তা না চাইলে শুকনো খেজুর খেতে পারেন কাজের ফাঁকে। খেজুরে শরীরের জন্য প্রয়োজনীয় ভিটামিন, খনিজ থাকে। প্রতিদিন দুই থেকে তিনটি খেজুর বো খেজুরের গুড় খেলে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ে।

ফল : ফলের রস নয়, রাতে কাজ করার সময় ক্ষিদে পেলে গোটা ফল খেতে পারেন। অনেকেই ভাবেন রাতে ফল খাওয়া ঠিক নয়, কিন্তু রাতে সফেদা, শাঁখালু, আপেল, পেয়ারা, পেঁপে এসব ফল খেতে পারে। এতে পেটও ভরবে আর শরীরও ভালো থাকবে। তবে রাতে সাইট্রাস জাতীয় ফল খাওয়া ঠিক নয়। এতে গ্যাসের সমস্যা হতে পারে। ফল শরীরে পুষ্টি দেয়। এটি খেলে অনিদ্রা, হজমের সমস্যা কমে যায়।

 

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত