প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] করোনায় আক্রান্ত ট্রাম্পের ১৪ বছরের ছেলে ব্যারন

সালেহ্ বিপ্লব: [২] ফার্স্ট লেডি মেলানিয়া ট্রাম্প বুধবার এক বিবৃতিতে বলেন, আমার আশংকাই সত্যি হলো। তিনি জানান, এর আগে ব্যারনের নেগেটিভ এসেছিলো। কিন্তু এরপর কয়েক দফা পরীক্ষায় ফলাফল কোভিড পজিটিভ। স্পুৎনিক

[৩] মেলানিয়া বলেন, নেগেটিভ রেজাল্ট এলেই আমরা শান্তি পাই। গত কয়েক মাস আমার মতোই ভেবেছেন অন্য মায়েরা, এখন আমি ভাবতেও পারছি না, আগামীকাল বা সামনে কী ঘটবে?

[৪] তিনি এও বলেন, ভাগ্যক্রমে সে শক্তিশালী টিন এজার, আর তার মধ্যে সংক্রমণের কোনও উপসর্গও দেখা দেয়নি। বিবিসি

[৫] স্বামীর সঙ্গেই পজিটিভ হওয়া ফার্স্ট লেডি তার নিজের অভিজ্ঞতার কথা জানান। তার ভাষায়, উপসর্গগুলো এসেছে একটা রোলার কোস্টারের মতো। গার্ডিয়ান

[৬] ২ অক্টোবর ট্রাম্প জানিয়েছিলেন, স্ত্রী ও তিনি, দুজনেই আইসোলেশনে যাচ্ছেন । এরপর অবস্থা খারাপ হলে ট্রাম্পকে মেরিল্যান্ডের ওয়াল্টার রিড মিলিটারি মেডিক্যাল সেন্টারে তিনদিনের চিকিৎসা দেয়া হয়। ফিরে এসে নির্বাচনী প্রচারণায় অংশ নিয়েছেন ট্রাম্প। পুরোটা সময় কোয়ারেন্টাইনে আছেন মেলানিয়া, বাচ্চাদের ব্যাপাারেও সতর্কতা নেয়া হয়। এতোদিন নেগেটিভ এলেও হঠাৎ পজিটিভ হওয়ায় স্বাভাবিকভাবেই শঙ্কায় ভুগছেন এই মা। আবার শিগগিরই সেরে উঠে কাজে ফেরার আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন ফার্স্ট লেডি মেলানিয়া। এপি

[৭] অবশ্য ট্রাম্পের অবাধ বিচরণ নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে আরো আগেই। কিন্তু তিনি বিধিনিষেধ মানছেন না কোভিড মহামারীর শুরু থেকেই। হাসপাতাল থেকে ফেরার পর হোয়াইট হাউসের চিকিৎসক বলেছেন, প্রেসিডেন্ট এখন নেগেটিভ। তার থেকে করোনা সংক্রমণের কোনও শঙ্কা নেই। কিন্তু সে কথা মানছেন না ডা. ফাউচি। ট্রাম্পের মাস্ক পরে চলা উচিত বলেও মত দিয়েছেন তিনি।

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত