প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

বিজেপির ‘নবান্ন’ কর্মসূচি ঘিরে কলকাতা রণক্ষেত্র

ডেস্ক রিপোর্ট: ভারতের পশ্চিমবঙ্গে বিজেপি যুব মোর্চার পক্ষ থেকে ‘নবান্ন’ কর্মসূচিকে কেন্দ্র করে কোলকাতা ও হাওড়ায় ব্যাপক সংঘর্ষের সৃষ্টি হয়েছে। বিজেপির দাবি, এ ঘটনায় তাদের এক হাজারের বেশি কর্মী-সমর্থক আহত ও পাঁচশোর বেশি সমর্থক গ্রেফতার হয়েছেন।

বৃহস্পতিবার দুপুরে বিজেপি কর্মী-সমর্থকরা বিভিন্ন জায়গায় পুলিশি ব্যারিকেড ভেঙে এগিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করলে পুলিশের সঙ্গে তাদের দফায় দফায় সংঘর্ষ সৃষ্টি হয়। রাজ্যে শিল্প, কর্মসংস্থান, আইনশৃঙ্খলাসহ একাধিক ইস্যুতে বিজেপির যুব মোর্চার পক্ষ থেকে আজ ‘নবান্ন’ অভিযানের ডাক দেওয়া হয়।

বিজেপি কর্মীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে ইট বৃষ্টি শুরু করলে পরিস্থিতি সামাল দিতে পুলিশও লাঠিচার্জ করার পাশাপাশি কাঁদানে গ্যাসের শেল নিক্ষেপসহ পানিকামান ব্যবহার করে। পুলিশকে লক্ষ্য করা বোমা নিক্ষেপ করা হয় বলেও অভিযোগ উঠেছে।
বিক্ষোভে অংশগ্রহণ করা বলবিন্দর সিং নামে এক বিজেপি সমর্থকের কাছ থেকে আগ্নেয়াস্ত্র উদ্ধার করেছে এবং তিনি বিজেপি নেতা অর্জুন সিং শিবিরের লোক বলে পুলিশ জানিয়েছে।

ওই ঘটনাকে কেন্দ্র করে রাজ্যের পুর ও নগোরন্নয়ন মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম বলেন, ‘বিজেপি কোনো রাজনৈতিক দল নয়, সন্ত্রাসবাদীদের দল। ওরা গুজরাটে, দিল্লিতে সন্ত্রাস করেছে। উত্তর প্রদেশে সন্ত্রাস চলছে। বাংলার শান্ত পরিবেশকেও ওরা নষ্ট করার চেষ্টা করছে। সেজন্য সন্ত্রাসবাদীদের ঠিক করতে যা যা ব্যবস্থা আমি পুলিশ প্রশাসনকে বলব সেইসব ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য।

অন্যদিকে বিজেপি’র কেন্দ্রীয় নেতা কৈলাশ বিজয়বর্গীয় মুখ্যমন্ত্রীর উদ্দেশে বলেছেন, ‘পতন যখন অনিবার্য শাসকদল তখন এভাবেই দমিয়ে রাখতে চায়। পুলিশকে নির্লজ্জ দলদাসে পরিণত করে। জলকামান, কাঁদানে গ্যাস, লাঠিচার্জ, অকথ্য অত্যাচার কোনোকিছুই ‘গেরুয়া সৈনিক’দের দমিয়ে রাখতে পারবে না। আমরা এগোবই। আমরা জিতবোই। আপনি আটকাতে পারবেন না মাননীয়া।’

বিডি-প্রতিদিন

 

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত