প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] বিশ্বে ২০১৯ সালে হত্যাকাণ্ডের শিকার হয়েছেন ২১২ জন ভূমি ও পরিবেশ অধিকার কর্মী

লিহান লিমা: [২] লন্ডন ভিত্তিক আন্তর্জাতিক এনজিও ‘গ্লোবাল উইটনেস’ বলেছে, এই সংখ্যা ২০১৮ সালের চেয়ে ৩০ শতাংশ বেশি। ওই বছর পরিবেশ ও প্রকৃতি রক্ষায় শিল্প-কারখানা ও দুর্নীতিগ্রস্ত ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে অবস্থান নেয়ায় ১৬৪ জন হত্যাকাণ্ডের শিকার হন। ডয়েচে ভেলে

[৩] সংস্থাটির গবেষক ম্যারি মেন্টন বলেন, হত্যাকাণ্ডের তদন্ত এবং প্রকৃত কারণ খুঁজতে ব্যর্থতার কারণে এই হত্যা কাণ্ডের প্রকৃত সংখ্যা দ্বিগুণ হলে অবাক হওয়ার কিছুই নেই। কারণ মাত্র ১০ শতাংশ দোষীকে শাস্তি দেয়া হয়েছে।

[৪] ২০১৯ সালে দুই-তৃতীয়াংশ হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে লাতিন আমেরিকার দেশগুলোতে। এদের মধ্যে প্রায় ৪০ শতাংশ আদিবাসী এবং এক-দশমাংশ নারী । সবচেয়ে বেশি পরিবেশবাদী নিহত হয়েছেন কলম্বিয়া (৬৪) ও ফিলিপাইনে (৪৩)। এর পরেই রয়েছে ব্রাজিল, মেক্সিকো, হন্ডুরাস, রোমানিয়া ও গুয়াতেমালা।

[৫] পরিবেশ বিরোধী কোনো নির্দিষ্ট অর্থনৈতিক খাতের বিরোধিতা করার কারণে ২০১৯ সালে প্রায় ১৪১ জনকে হত্যা করা হয়েছে। খনিজ কার্যক্রমের বিরোধিতা করার জন্য এক-তৃতীয়াংশকে হত্যা করা হয়েছে। এগ্রি-বিজনেসের বিরোধিতা করার কারণে ৩৪ জনকে হত্যা করা হয়েছে।

[৬] গ্লোবাল উইটনেসের প্রতিবেদনে উঠে আসে, গত কয়েক দশক ধরে, মধ্য ও দক্ষিণ আমেরিকা, এশিয়া এবং আফ্রিকার বনাঞ্চলের স্থানীয় জনগোষ্ঠীর আদিভূমির ক্ষতি ও ধ্বংস করা হচ্ছে। যার পেছনে রয়েছে শিল্প-কারখানার মালিকগোষ্ঠি ও প্রভাবশালী মহল। এদের সঙ্গে স্থানীয় ও জাতীয় সরকারেরও সম্পৃক্ততা রয়েছে বলেও জানা গিয়েছে। সম্পাদনা: ইকবাল খান

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত