প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] চেংদুর মার্কিন কনস্যুলেট বন্ধের নির্দেশ দিলো চীন

লিহান লিমা: [২] শুক্রবার দক্ষিণপশ্চিমাঞ্চলের চেংদুর মার্কিন কনস্যুলেট বন্ধের নির্দেশ দিয়েছে চীন। চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রণালয় এক বিবৃতিতে বলেছে, ‘ যুক্তরাষ্ট্রের অকারণে গৃহীত পদক্ষেপের পাল্টা বৈধ এবং প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে। বর্তমানে দুই দেশের যে সম্পর্ক তা চীন কখনোই দেখতে চায় নি। এবং এই সবকিছুর জন্য যুক্তরাষ্ট্রই দায়ী।’ নিউইয়র্ক টাইমস

[৩] গত বুধবার মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প সরকার গুপ্তচরবৃত্তির অভিযোগ এনে হিউস্টনের চীনা দূতাবাস ৭২ ঘণ্টার মধ্যে বন্ধের নির্দেশ দেয়। এফবিআই বলছে, এই দূতাবাস থেকে ২৫ জন চীনের সেনাবাহিনীর সদস্যকে যুক্তরাষ্ট্রের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয় ও গবেষণা প্রতিষ্ঠানে গুপ্তচরবৃত্তির জন্য পাঠানো হয়েছিলো। চীন হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেছিলো, যুক্তরাষ্ট্র এই নির্দেশ প্রত্যাহার করে না নিলে পাল্টা পদক্ষেপ নেয়া হবে। এদিন চারজন চীনা নাগরিককে ভিসা জালিয়াতির অভিযোগে গ্রেপ্তার করা হয়।

[৪] এদিকে চীনের এই ঘোষণার পূর্বে মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও ক্যালিয়োর্নিয়ার প্রেসিডেন্ট রিচার্ড নিক্সন লাইব্রেরিতে দেয়া এক ভাষণে বলেছেন, ‘ট্রাম্প প্রশাসন চীনের বিরুদ্ধে কঠোরতর পদক্ষেপ গ্রহণ করবে। এটি ২১শতক, চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিংয়ের স্বপ্নের চীনা শতক নয়। এই মুক্ত বিশ্বকে কমিউনিস্ট চীনকে পরিবর্তন করতে রুখে দাঁড়াতে হবে, নয়তো চীনই আমাদের পরিবর্তন করে দেবে। এখন সময় এসেছে চীনের সঙ্গে অন্ধ সম্পর্ক থেকে বের হয়ে আসার।’

[৫] প্রসঙ্গত ১৯৭২ সালে নিক্সন চীন সফরে দুই দেশের সম্পর্কের নতুন যুগের ঘোষণা দেন। পম্পেও বলেন, ‘চীন এই সুযোগের অপব্যবহার করেছে। প্রেসিডেন্ট নিক্সন একবার উদ্বেগ প্রকাশ করে বলেছিলেন, তিনি নিজেই বিশ্বকে দৈত্য বানিয়ে দিয়েছেন।’

[৬] যুক্তরাষ্ট্রের ওপর শীতল যুদ্ধ শুরু করার অভিযোগ এনে চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র বলেন, ‘নিক্সন লাইব্রেরিতে পম্পেওর ভাষণে স্পষ্ট তিনি ২১ শতকের জন ফস্টার ডুলস।’ প্রসঙ্গত সাবেক মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ডুলস বিশ্বজুড়ে কমিউনিজ্যমের বিরুদ্ধে শীতল যুদ্ধ ও আগ্রাসী নীতির সূচনা করেছিলেন।

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত