প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] স্বাধীনতার ইশতেহার পাঠকারী মহানায়ক শাজাহান সিরাজ মারা গেছেন

শাহানুজ্জামান টিটু : [২] সাবেক বন ও পরিবেশ মন্ত্রী বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতা শাজাহান সিরাজ মঙ্গলবার বিকাল ৩ টা ৩০ মিনিটে রাজধানীর এপোলো হাসপাতালে ইন্তেকাল করেছেন। ইন্না-লিল্লাহ ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন। তিনি

[৩] স্ত্রী এক ছেলে ও এক মেয়ে রেখে গিয়েছেন। বর্তমানে ছেলে দেশের বাহিরে অবস্থান করছেন। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বিএনপি চেয়ারপারসনের মিডিয়া উইংয়ের কর্মকর্তা শায়রুল কবির খান।

[৪] ২০১২ সালে ফুসফুসে ক্যান্সার ধরা পড়ে। এরপর কয়েক বছর পর মস্তিষ্কেও ক্যান্সার ধরা পড়ে। এরপর থেকেই তিনি কখনো হাসপাতালে কখনো বাসায় সজ্ঞানহীন ছিলেন।

[৫] শাজাহান সিরাজ বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক। ১৯৭০-৭২ মেয়াদে অবিভক্ত ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। তিনি ছিলেন ‘স্বাধীন বাংলা বিপ্লবী পরিষদ’ (যার অন্য নাম নিউক্লিয়াস) এর সক্রিয় কর্মী, ছাত্র সংগ্রাম পরিষদের নেতা।

[৬] ১৯৭১ সালের স্বাধীনতা যুদ্ধের সময় তিনি ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক ছিলেন। জাতীয় সংসদ নির্বাচনে তিনি ৩ বার জাসদের মনোনয়নে এবং ১ বার বিএনপি’র মনোনয়নে সংসদ সদস্য নিবাচিত হন। শাজাহান সিরাজ ২০০১ সালের নির্বাচনের পর খালেদা জিয়ার সরকারে বন ও পরিবেশ মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী হিসেবেও দায়িত্ব পালন করেন।

[৭] ১৯৪৩ সালের ১ মার্চ টাঙ্গাইলের কালিহাতীতে জন্মগ্রহণ করেন শাজাহান সিরাজ। তার পিতার নাম আব্দুল গণি মিয়া ও মাতা রহিমা বেগম। ১৯৬২ সালে হামিদুর রহমান শিক্ষা কমিশন বিরোধী আন্দোলনে সম্পৃক্ত হওয়ার মধ্যদিয়ে শাহজাহান সিরাজ ছাত্র-রাজনীতিতে প্রবেশ করেন। সেই সময় তিনি টাঙ্গাইলের করটিয়া সা’দত কলেজের ছাত্র ছিলেন। এরপর তিনি ছাত্রলীগের মাধ্যমে ছাত্র-রাজনীতিতে উঠে আসেন।

[৮] ১৯৬৪-৬৫ এবং ১৯৬৬-৬৭ দুই মেয়াদে তিনি দুইবার করটিয়া সা’দাত কলেজের ছাত্র সংসদের ভিপি নির্বাচিত হয়েছিলেন। একজন সক্রিয় ছাত্রনেতা হিসেবে তিনি ১১ দফা আন্দোলন এবং ১৯৬৯ সালের গণঅভ্যুত্থানে অংশগ্রহণ করেন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত