প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] থানা হাজতে সারারাত জেগে ছিলেন সাবরিনা

ইসমাঈল ইমু : [২] তেজগাঁও থানার হাজতখানার সামনে একজন নারী প্রহরীর সঙ্গে মাঝে মাঝে কথা বলেছেন। এছাড়া ভেতরে পায়চারি করেছেন। থানায় নেয়ার পর তাকে কিছুক্ষণ একজন পুলিশ কর্মকর্তার কক্ষে বসানো হয়েছিল। এরপর তাকে হাজতে রাখা হয়।

[৩] গত রোববার দুপুরে তাকে গ্রেপ্তারের পর বিকাল সাড়ে ৫টার দিকে তাকে তেজগাঁও থানায় নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে নিয়ে যাওয়ার পর তাকে প্রথমে একজন পুলিশ কর্মকর্তার কক্ষে বসানো হয়। এরপর হাজতে রাখা হয়। থানায় সাবরিনার স্বজনরা ও একজন গৃহকর্মী ছিলেন। থানা থেকে সরবরাহ খাবারই রাতে খেয়েছেন তিনি। হাজতখানায় তাকে পায়চারি করতে দেখেছেন দায়িত্বরত পুলিশ কর্মকর্তারা।

[৪] কোভিড নমুনা পরীক্ষার নামে প্রতারণার অভিযোগে রোববার গ্রেপ্তার হন জেকেজি হেলথ কেয়ারের চেয়ারম্যান ডা. সাবরিনা আরিফ চৌধুরী। এরআগে তার স্বামী ও জেকেজির প্রধান নির্বাহী আরিফুল চৌধুরী ও প্রতিষ্ঠানটির কয়েকজন কর্মকর্তা ও কর্মচারীকে গ্রেপ্তার করে তেজগাঁও থানা পুলিশ।

[৫] প্রতিষ্ঠানটি মানুষের বাড়ি বাড়ি গিয়ে নমুনা সংগ্রহ করে তা পরীক্ষা না করেই মনগড়া রিপোর্ট তৈরি করে দিতো বলে পুলিশ প্রমাণ পেয়েছে। জেকেজির ঘটনায় তেজগাঁও থানায় চারটি মামলা হয়েছে। সম্পাদনা : রায়হান রাজীব

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত