প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] ক্রিকফ্রেঞ্জির লাইভে সুজন, আফ্রিদির আচরণ অনেকটা মেয়েদের মতো

স্পোর্টস ডেস্ক : [২] শহীদ আফ্রিদি। ধুমধাড়াক্কা ব্যাটিংয়ের জন্য পরিচিত পাকিস্তানের সাবেক এই ক্রিকেটার। লেগ স্পিন দিয়েও নজর কেড়েছেন অনেকবার। ম্যাচ উইনার বা ম্যাচের মোড় পাল্টে দেয়ার ক্ষমতা রাখা এই অলরাউন্ডারকে দলে পেতে মুখিয়ে থাকেন সব টি-টোয়েন্টির ফ্র্যাঞ্চাইজিরা।

[৩] আফ্রিদি যেদিন ফর্মে থাকেন সেদিন প্রমাদ গুণতে থাকেন প্রতিপক্ষ দলের ক্রিকেটাররা। যদিও ক্যারিয়ার জুড়ে এই অলরাউন্ডার নিয়মিত জ্বলে উঠতে পারেননি। ২০ বছরের ক্যারিয়ারে ব্যাটিংয়ে ধারাবাহিক না হতে পারলেও বোলিং দিয়ে পুষিয়ে দিতে সক্ষম তিনি।

[৪] ব্যাটিংয়ে নেমে কখন কি করে বসবে তা কেউই বলতে পারবেন না। নিজের দিনে দলকে ম্যাচ জেতাতেও পারেন আবার সহজ ম্যাচ হারিয়েও দিতে পারেন। যে কারণে ক্যারিয়ার জুড়ে তাঁর নামের পাশে আনপ্রেডিক্টেবল আফ্রিদি শব্দটা যুক্ত হয়ে গিয়েছিল।

[৫] টি-টোয়েন্টির এই ফেরিওয়ালা বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের পরিচিত মুখ। দ্বিতীয় আসর বাদে সব আসরেই এসেছেন খেলতে। ২০১৭ সালে বিপিএলের পঞ্চম আসরে খেলেছেন ঢাকা ডাইনামাইটসের হয়ে। সেবার দলটির কোচ হিসেবে দায়িত্বে ছিলেন খালেদ মাহমুদ সুজন।

[৬] এক সময়ে একসঙ্গে খেলেছেনও দুজন। তাই লম্বা সময় ধরে আফ্রিদিকে ভালোভাবেই চেনা রয়েছে বাংলাদেশের সাবেক এই অধিনায়কের। তবে ক্রিকফ্রেঞ্জির লাইভে এসে তিনি জানিয়েছেন, বিদেশি ক্রিকেটারদের মধ্যে আফ্রিদিকে সামলানো সবচেয়ে কঠিন।

[৭] এতো বছরেও পাকিস্তানের এই তারকা ক্রিকেটারকে বুঝতে পারেননি সুজন। তার মতে, আফ্রিদির আচরণ অনেকটা মেয়েদের মতো। বাংলাদেশের সাবেক এই অধিনায়ক বলেন, শহীদ আফ্রিদিকে সামলানো সবচেয়ে কঠিন। মিডিয়াতে সব কথা খোলামেলা ভাবে বলা সম্ভব নয়। তবে কিছু কিছু ক্ষেত্রে কৌশলগত সিদ্ধান্তের কারণে তাঁকে আমরা খুব গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে মিস করেছি।

[৮] সুজন আরও বলেন, এমন কিছু ঘটনা হয়েছে আরকি। খেলোয়াড়রা একটু যে এমন হয় না এমনটা না। কিন্তু আমরা সবাইকে সামলে নেই। তবে সামলানোর ক্ষেত্রে আফ্রিদিই সবচেয়ে বেশি কঠিন। আমরা অনেক বছর একসঙ্গে খেলেছি, তারপরেও মাঝে মাঝে ওকে আমি বুঝতে পারি না। সে একজন নারীর মতো।

সর্বাধিক পঠিত