প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] রাজনৈতিক নেতৃত্বের ব্যর্থতায় সচিবদের উপর নির্ভর করতে হয়েছে আওয়ামী লীগকে : আহমদ আযম

শাহানুজ্জামান টিটু : [২] বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান বলেন, একারণে ত্রাণ বিতরণের সমন্বয়ের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে সচিবদের। তারা মনিটরিং করবেন জেলা তৃণমূল পর্যায়ে। কিন্তু মনিটরিংয়ের জন্য নির্ভর করতে হবে প্রশাসনের লোকদের উপরে বিশেষ করে জেলা, উপজেলা প্রশাসন, পুলিশ প্রশাসন, ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান। কিন্তু সেখানে স্বচ্ছতা কোথায়।

[৩] তিনি বলেন, এখানে জেলা প্রশাসক যে রিপোর্টটা দেবেন সেটাইতো সচিব গ্রহণ করবেন। যদি ইউনিয়ন পর্যন্ত সর্বদলীয় কমিটি কমিটি থাকত এবং ইউনিয়ন পর্যন্ত এক বা দুই জন করে পুলিশ, র‌্যাব বা সেনাবাহিনী প্রতিনিধি থাকতো তাহলে সুষ্ঠু বিলি বন্টনের ব্যবস্থা থাকতো। সেটা কিন্তু এখন হচ্ছে না। তার মানে উদ্যোগ বাস্তবসম্মত না।

[৪] আহমদ আযম বলেন, পুলিশ, চিকিৎ]সক সাংবাদিক সদস্যদের মৃত্যু দেখছি | চিকিৎসক-নার্স স্বাস্থ্যকর্মীসহ শত শত মানুষ আক্রান্ত হচ্ছেন। কিন্তু তাদের প্রয়োজনীয় নিরাপত্তার ব্যবস্থা নেই। এগুলো সরকার খেয়াল করছে না। সরকারের সেই প্রস্তুতি নেই।

এই সরকারের স্বাস্থ্যমন্ত্রী তুলনা করে যে আমাদের এখানে দৈনিক 500-600 আক্রান্ত হচ্ছে। আমেরিকার চেয়ে অনেক কম আছে। ভুটান, ভিয়েতনামসহ পাশের দেশ মিয়ানমারের সঙ্গে তুলনা করেন। তখন বোঝা যাবে পার্থক্যটা কার কত।

[৫] বিএপির এই নেতা বলেন, বাংলাদেশকে হুমকির মুখে ফেলে দিয়েছে। পরিকল্পিতভাবে বিশেষ করে প্রধান প্রধান রাজনৈতিক দলের সাথে আলোচনা করে সিদ্ধান্ত নেয়া হলে এত জন আক্রান্ত হতো না। এত জনের মৃত্যু হতো না এবং এবং দিন দিন আক্রান্তের সংখ্যাও বাড়তো না।

[৬] তিনি বলেন, যদি আমরা পরিকল্পিতভাবে এগুতে পারতাম। তাহলে এখন আমরা থাকতাম না অনেক নিচে। তারপরে এই গার্মেন্টস খুলে দিচ্ছে এটা খুলে দেওয়ার কোনো বিকল্প নেই । কারণ বাংলাদেশের অর্ডার চলে গেছে বাইরে। বাকি অর্ধেক যদি চলে যায় তাহলে বাংলাদেশের অর্থনীতি কোথায় দাঁড়াবে? এই সরকার বাধ্য হয়েছে বিজিএমইএর চাপে।

[৭] সোমবার প্রতিক্রিয়ায় বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান এ কথা বলেন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত