প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] করোনাকালে সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের পাশে হাসিমুখ

মনিরুল ইসলাম : [২] করোনা দুর্যোগের মধ্যে সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের প্রতি সহযোগিতার হাত বাড়িয়েছে ‘হাসিমুখ’ নামে পরিচিত স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন ‘হাসিমুখ সমাজ কল্যাণ সংস্থা’। সংস্থাটির পক্ষ থেকে খাদ্য সংকটে থাকা দুই শতাধিক শিশু ও তাদের পরিবারকে নিয়মিত সহায়তা দেওয়া হচ্ছে। আগামী দুই মাস এই কর্মসূচী অব্যাহত থাকবে বলে সংগঠনের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।

[৩] করোনা পরিস্থিতিতে সংকটে পড়েছে পথশিশুসহ সুবিধাবঞ্চিত শিশুরা। বিষয়টি গুরুত্বের সঙ্গে নিয়ে ‘হাসিমুখ’ এ পর্যন্ত তিন দফায় খাদ্যপণ্য বিতরণ করা হয়। রাজধানীর পরিবাগ, বাংলামোটর, হাতিরপুল ও কাঁঠালবাগানে বসবাসরত সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের পরিবারকে এই সহায়তা দেওয়া হয়।

[৪] প্রতিটি পরিবারকে প্রথম দফায় গত ২৮ মার্চ দুই কেজি চাল, তিন প্যাকেট বিস্কুট ও ভিটামিন-সি সমৃদ্ধ পানীয় তুলে দেওয়া হয়। গত ৫ এপ্রিল দ্বিতীয় দফায় ৫ কেজি চাল, এক কেজি ডাল, দুই কেজি আলু, এক কেজি পেয়াজ, এক কেজি লবণ, একটি সাবান ও ৫০০ গ্রাম সয়াবিন তেল দেওয়া হয়। গত ২৫ এপ্রিল তৃতীয় দফায় প্রতিটি পরিবারকে একই পরিমাণ নিত্যপণ্য সরবরাহ করা হয়।

[৫] করোনা ভাইরাস সংক্রমণ বন্ধ না হওয়া পর্যন্ত এই সেবামূলক কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে বলে জানিয়েছেন ‘হাসিমুখ’র সহ-প্রতিষ্ঠাতা নুসরাত একা।

[৬] তিনি জানান, ধানমন্ডি’র মেহেরুন্নেসা গার্লস স্কুল অ্যান্ড কলেজ থেকে খাদ্য সহায়তা কার্যক্রম পরিচালিত হচ্ছে। নতুন করে আরও দুই মাসের কর্মসূচি হাতে নেওয়া হয়েছে। এই দুই মাসে সংস্থায় তালিকাভুক্ত প্রতিটি শিশুর পরিবারকে ১৫ দিন পর পর শুকনো খাবার দেওয়া হবে।

[৭] প্রসঙ্গত, গত ৭ বছরেরও বেশি সময় ধরে সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের অধিকার প্রতিষ্ঠায় কাজ করছে ‘হাসিমুখ সমাজ কল্যাণ সংস্থা’। সংস্থাটি ‘হাসিমুখ’ নামে একটি বৈকালিক স্কুল পরিচালনা করে। প্রতি সপ্তাহের (শুক্রবার বাদে) ছয়দিন বিকেল চারটা থেকে সন্ধ্যা ছয়টা পর্যন্ত স্কুলের কার্যক্রম চলে। সেখানে তিন শতাধিক শিশুর মাঝে শিার আলো ছড়াতে কাজ করেন ২০ জন স্বেচ্ছাসেবক।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত