প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] করোনায় অনিশ্চিত প্রিমিয়ার লিগ, সুপার লিগ আয়োজনে বাফুফেকে জেমি ডের প্রস্তাব

নিজস্ব প্রতিবেদক : [২] আবার কবে মাঠে গড়াবে খেলা সেটা কেউ জানে না। দেশে শুরু হওয়া প্রিমিয়ার লিগও বন্ধ হয়েছে এক মাস। এখন লিগের ভাগ্য কি হবে তা নিয়ে ক্লাব ও লিগ কমিটির মধ্যে আলোচনা চলছে। বেশিরভাগ ক্লাবের লিগ চালু না রাখার পক্ষে। এমন অবস্থায় লিগ নিয়ে একটা প্রস্তাব দিয়েছেন জাতীয় ফুটবল দলের প্রধান কোচ জেমি ডে।

[৩] ১৩টি ক্লাব নিয়ে একটি সুপার লিগ করার প্রস্তাবটা জেমি দিয়েছেন বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের কাছে। সেপ্টেম্বর থেকে ডিসেম্বর চার মাস ব্যাপী এই লিগের পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে দুই দল ডিসেম্বরে খেলবে ফাইনাল। তারপর স্বাভাবিক নিয়মে নতুন লিগ শুরু হবে। এ প্রস্তাবটা করোনাকে মাথায় রেখে করা হয়েছে বলেও জানান এই ইংলিশ কোচ।

[৪] জেমি জানান, আমি বাফুফেকে প্রস্তাব দিয়েছি ‘বাংলাদেশ সুপার লিগ’ নামে প্রতিযোগিতা আয়োজনের জন্য। যেটা সেপ্টেম্বর থেকে নভেম্বর পর্যন্ত চলবে। ১৩টি দল হোম অ্যান্ড অ্যাওয়ে ভিত্তিতে খেলবে। এরপর শীর্ষ চার দল নিয়ে ডিসেম্বরে হবে সেমিফাইনাল। তারপর বিজয়ী দুই দল খেলবে ফাইনালে।

[৫] কিছুটা এই নিয়মে ফেডারেশন কাপ ও স্বাধীনতা কাপ আয়োজন করে থাকে লিগ কমিটি। তবে করোনার পর লিগ বন্ধ হলে খেলোয়াড়দের সম্পৃক্ত করাটাই মূল উদ্দেশ্য মনে করেন জেমি, ‘তাতে করে কিছুটা ফুটবলের সংস্পর্শে আসতে পারবে ফুটবলাররা। এরপর কিছুদিন বিরতি দিয়ে শুরু করা যেতে পারে নতুন ফুটবল মৌসুম।’

[৬] এই প্রস্তাবে ক্লাবগুলোর সম্মতির বিষয় আছে মনে করেন এই ইংলিশ কোচ, লিগ যদি না হয়, তখন এই নতুন প্রতিযোগিতাটি হতে পারে। যেখানে দলগুলো খেলবে একটি শিরোপার জন্য। স্বল্প সময়ের মধ্যে লিগভিত্তিক প্রতিযোগিতাটি শেষ হবে বলে ম্যাচগুলোও হবে উপভোগ্য। তবে এটা শুধু আমার প্রস্তাব। আদৌ সেপ্টেম্বরে করোনা পরিস্থিতি ঠিক হবে কিনা, কেউ বলতে পারছে না।

[৭] আপাতত লিগের ভবিষ্যত কি হতে পারে সে বিষয়ে ক্লাবগুলোর কাছে মতামত চেয়ে চিঠি পাঠিয়েছে বাফুফে। কয়েকটি ক্লাব তাদের মতামত জানিয়েছে। তবে এখনই লিগ বাতিলের পক্ষে নয় ফেডারেশন।

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত