প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

করোনা ভাইরাসের প্রচারণার বিষয়ে স্বাস্থ্যমন্ত্রীকে সতর্ক হতে বললেন প্রধানমন্ত্রী

আনিস তপন : বিশ্বব্যাপী আতঙ্ক সৃষ্টিকারী করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে স্বাস্থ্যমন্ত্রীকে প্রয়োজনীয় নির্দেশনা দেয়ার পাশাপাশি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের বাড়াবাড়ির কারণে যাতে দেশের সাধারণ মানুষের মাঝে কোনো আতঙ্ক তৈরী না হয় সে বিষয়ে লক্ষ্য রাখতে নির্দেশনা দেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

সোমবার (২৭ জানুয়ারি) সচিবালয়ে অনুষ্ঠিত মন্ত্রিসভা বৈঠকের অনির্ধারিত আলোচনার সময় এমন নির্দেশনা দেন প্রধানমন্ত্রী। সংশ্লিষ্ট একাধিক সূত্রে জানাগেছে এ তথ্য।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক মন্ত্রিসভার সিনিয়র এক সদস্য জানান, স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের পরামর্শে দেশে করোনা ভাইরাস প্রবেশ রোধে স্বাস্থ্য অধিদদপ্তর নানামূখী পদক্ষেপ নিয়েছে। এরমধ্যে দেশের প্রতিটি বিমান-বন্দর, নৌ-বন্দরসমূহ, স্থল বন্দরসমূহে স্বাস্থ্য পরীক্ষার ব্যবস্থা করেছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। তাছাড়া গত রোববার সচিবালয়ে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে অনুষ্ঠিত এসংক্রান্ত এক বৈঠকে করোনা ভাইরাস যাতে বাংলাদেশে প্রবেশ করতে না পারে সেজন্য চীনের সঙ্গে শিক্ষার্থী, ব্যবসায়ী এবং পর্যটকদের যাতায়াত বন্ধের সুপারিশ করা হয়।
এরই ধারাবাহিকতায় সোমবার মন্ত্রিসভা বৈঠকে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহেদ মালিক করোনা ভাইরাস প্রতিরোধ, জনসচেতনতা বৃদ্ধিসহ কিছু নিয়ম-কানুন পালনের বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে অবহিত করেন।

এসময় জবাবে প্রধানমন্ত্রী স্বাস্থ্যমন্ত্রীকে যে কোনো প্রচারণা বা সতর্কতামূলক বক্তব্য দেয়ার আগে সতর্ক হওয়ার নির্দেশনা দেন। এ প্রসঙ্গে প্রধানমন্ত্রী বলেন, এ নিয়ে বেশি বাড়াবাড়ি করা যাবে না। এ ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব ও এর ফলাফল নিয়ে বেশি প্রচারণা চালালে তা জনসাধারণের মাঝে আতঙ্ক সৃষ্টি করতে পারে বলে স্বাস্থ্যমন্ত্রীকে সতর্ক করেন তিনি। প্রধানমন্ত্রী বলেন, এ নিয়ে বেশি কথা বললে, বেশি প্রচারণা করলে জনগণের মধ্যে ভুল মেসেজ (তথ্য) যেতে পারে। তাই করোনা ভাইরাস প্রতিরোধ বা নিয়ন্ত্রণে কি করা যায় অথবা এর চিকিৎসা কি হবে তা নিয়ে কাজ করার নির্দেশ দেন।

এছাড়াও চীন হয়ে যারা আসছেন, তাদেরও বিশেষভাবে দেখাশোনা করার তাগিদ দিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন সবাইকে কেয়ারফুল থাকতে হবে। বিশেষ করে এয়ারপোর্ট এবং পোর্টে (বন্দর) স্পেশাল কোয়ারেন্টাইনের ব্যবস্থা রাখতে হবে। যাতে আমাদের মধ্যে এই ভাইরাসের বিস্তার না করতে পারে। চীন বা হংকং থেকে যেসব প্লেন আসবে সেগুলোতে বিশেষ নজর রাখার কথাও বলেন তিনি। চীনের সঙ্গে সরাসরি যোগাযোগ আছে এমন বন্দরের প্রতি বিশেষ নজর দেয়ার নির্দেশনার পাশাপাশি চীনে আটকা পড়া বাংলাদেশিদের ফিরিয়ে আনার নির্দেশ দিয়েছেন শেখ হাসিনা।

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত