প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

অতিরিক্ত চিপস খাওয়ার অভ্যাস বাড়াচ্ছে ক্যান্সারের ঝুঁকি

নিউজ ডেস্ক : চিপস খাওয়ার অভ্যাস অনেকের মধ্যে গড়ে উঠেছে। সকালে ঘুম থেকে উঠে, দুপুর বা রাতে, বিকেলে চায়ের সঙ্গে। যখন তখন কোল্ড ড্রিঙ্কস-এর সঙ্গে পটেটো চিপস। আরটিভি

যখন মন চাইল, কাছের কোনো দোকান থেকে কিনে খেয়ে নেন অনেকে। অনেকে ক্ষুধা নিবারণের জন্য খান না, ভাল লাগে তাই চিপস খেতে পছন্দ করেন। বেড়াতে গেলে সঙ্গে রাখেন চিপসের প্যাকেট।

বচ্চাদের মধ্যে স্বাদের পটেটো চিপস খাওয়ার ঝোক অনেক বেশি। কেউ কেউ আবার যখন তখন বাচ্চার হাতে ধরিয়ে দেন চিপসের প্যাকেট। চিপসের মধ্যে রয়েছে এমন এক ধরনের রাসায়নিক উপাদান রয়েছে যা ক্যান্সার রোগের কারণ হতে পারে!

সুইডিস ন্যাশনাল ফুড অথোরিটির একটি গবেষণায় দেখা গেছে, এক্রাইলামাইড বা এক্রিলামাইড প্রাকৃতিকভাবে সংগঠিত এমন এক প্রকার রাসায়নিক যৌগ যা উচ্চক্ষম শর্করা বহনকারী শস্য বা সবজিতে থাকে এবং উচ্চতাপ মাত্রায় উত্তপ্ত হলে সেই যৌগ গঠনে সক্ষম হয়। মানুষের আয়ু কমানোর জন্য এই রাসায়নিক যৌগটির যেমন বিশেষ ভুমিকা রয়েছে তেমনি এটি ক্যান্সারের কোষকে দ্রুত বাড়তে সাহায্য করে।

আলু এক রকম উচ্চ শ্বেতসার সমৃদ্ধ সবজি। এই আলুর অতি পাতলা করে কাটা টুকরো অতিরিক্ত লবণ মাখিয়ে ডুবো তেলে অনেকক্ষণ ধরে ভাজার পর তা সংরক্ষণ করতে উচ্চতাপমাত্রা ব্যবহার করা হয়। খাদ্যগুণ অনেকাংশেই নষ্ট হয়ে যায়। এই পদ্ধতিতে প্যাকেটজাত আলুর চিপসে এক্রাইলামাইড জাতীয় ক্ষতিকারক রাসায়নিক যৌগ উৎপাদিত হয়। এই রাসায়নিক যৌগের মাধ্যমে ক্যান্সার সৃষ্টি হতে পারে।

পুষ্টিবিদদের মতে, ঘরে তৈরি আলু ভাজা খাওয়া যেতে পারে। তবে কোনও কিছু মাত্রাতিরিক্ত না খাওয়াই ভাল। অনুলিখন: জেবা আফরোজ

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত