প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

শেখ সেলিম বললেন, জঙ্গি-সন্ত্রাসীদের এক মাসের মধ্যে বিচারের আইন করতে হবে

আবুল বাশার নূরু: জঙ্গি, সন্ত্রাসী ও আগুনে পুড়িয়ে নারী হত্যাকারীদের এক মাসের মধ্যে বিচার করে ফাঁসি দেওয়ার আইন করা উচিত বলে মন্তব্য করেছে আওয়ামী লীগের সভাপতিমন্ডলীর সদস্য শেখ ফজলুল করিম সেলিম।

নিউজিল্যান্ড, শ্রীলঙ্কায় জঙ্গি হামলা, ফেনীর নুসরাতকে পুড়িয়ে হত্যাসহ সন্ত্রাস, যৌননিপীড়নের বিরুদ্ধে বাংলাদেশসহ বিশ্বের সব সংসদ, সরকার ও নাগকিরদের প্রতিরোধ গড়ে তোলার আহ্বান জানিয়ে জাতীয় সংসদে সোমবার আনা একটি সাধারণ প্রস্তাবের উপর আলোচনায় অংশ নিয়েছেন শেখ ফজলুল করিম সেলিম।

শ্রীলঙ্কার বোমা হামলায় শেখ সেলিমের নাতি শিশু জায়ান চৌধুরী নিহত হন। বক্তব্যে শেখ সেলিম আবেগঘন কণ্ঠে জায়ানের স্মৃতিচারণ করেন। তিনি বলেন, সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ আজ সব ধর্মকে বিতর্কিত করছে। সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ সারা বিশ্ব মানবতার শত্রু হয়ে দাঁড়িয়েছে। যারা এটা করছে এদের মানবতা কোথায়। শ্রীলঙ্কায় বোমা ফাটিয়ে নিজেরাও মরলো, সেখানে অনেক মানুষ মারা গেলো, আমার নাতি জায়ান মারা গেলো। এটা করে কি ইসলাম তারা প্রতিষ্ঠা করতে চায়। জায়ান নিষ্পাপ শিশু, কি অন্যায় সে করেছিল। আমার মেয়েটার বাচ্চাই (সন্তান) হলো তার পৃথিবী। তার বুকের ধন এভাবে কেড়ে নিলো, এটা ভাষায় প্রকাশ করা যায় না। আমার নাতি জায়ান লেখাপড়া করতো, কোরআন পড়তো, এতো সুন্দর কণ্ঠে পড়তো মনে হতো উচ্চমানের হাফেজ। ক্রিকেট খেলতো, লাল রঙের জামা পরতে ভালোবাসতো। তাকে হত্যা করা এরা কি পেলো।

শেখ সেলিম আরও বলেন, পৃথিবীতে যে হানাহানি, জঙ্গিবাদ, হত্যা এটা করে কি পাচ্ছে তারা, তাদের মানবতা কোথায়। তারা একটা স্টেটের কথা বলছে, কোরআনে কি একটা স্টেটের কথা বলা আছে। এখন সময় এসেছে গোটা পৃথিবীকে এর বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়ানোর। ফেনীর নুসরাতকে কীভাবে নৃশংসভাবে হত্যা করা হলো। এরা কি মানুষ, এরা পশুর চেয়েও নিকৃষ্ট। একটা আইন করা উচিত এক মাসের মধ্যে বিচার করে এদের ফাঁসি দেওয়ার।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত