প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

মেয়ের বয়স হয়েছে বিয়ে দেবেন কবে?

সাজিয়া আক্তার : মেয়ের বয়স হয়েছে বিয়ে দেবেন কবে? যতই ছোট জামা কাপড় পরুক বয়সটাতো আর লুকানো যাবে না, বয়স তো হয়েই যাচ্ছে। এরকম হাজারো মন্তব্য নারীদের কম বেশি রোজেই শুনতে হয়। আর অনলাইনেও দেখা যায়। তবে এরকম মন্তব্য অনেক মেয়েকে এখন আর দুঃখ দেয় না, বরং সাহস যোগায় আরো এগিয়ে যেতে। ফেইসবুক থেকে

ভারতীয় এক অনুষ্ঠানে অভিনেত্রী প্রিয়াঙ্কা নারীদের কিছু সমস্যা তুলে ধরে বলেন, মেয়ে পিএইচডি করছে তার মানে তো অনেক বয়স। মেয়ের বিয়ে দেবেন কবে? পিএইচডি করছে মানে তো মেয়ের অনেক বয়সেই হলো তাই না? যাই হোক বিয়েথা এবার তাড়াতাড়ি দিয়ে ফেলুন। তার পরে তো বেশি বয়স হলে বাচ্চা কাচ্চাও হতে চায় না। আর একটা মেয়ের যদি ছেলে মেয়েই না হয় তাহলে আর কি হবে বলুন?
সংসারে থাকতে হলে একটু আটটু এডজাস্ট করে নিতে হয়। আর ছেলেরা একটু আটটু প্রেম করেই বাইরে থাকলে, তাতে কি? তুই এডজাস্ট করে নিবি।

প্রথম কথা কোনো মহিলাকে মহিলা না ভেবে আগে মানুষ হিসেবে ভাবতে শিখুন। পুরুষের একটা কাজ আর মহিলার অন্য কাজ, এখন আর এটা করা যাবে না।

যাই বলেন জীবনে একজন পুরুষ মানুষের ভীষণ প্রয়োজন। বাচ্চাকে স্কুলে রেখে কোথায় যাও, আর বাড়ি ফেরো সেই রাত করে। শোন আমাদের পাড়া কিন্তু ভদ্র পাড়া, এই পাড়ায় থেকে এসব অভদ্র ব্যাপার সেপার করা যাবে না। এসব আবার কিসব জামা কাপড় পরে কিসব ছবি দাও অনলাইনে? তুমি না মা? বাচ্চা কি শিকবে বলো? আয়া রেখেছো বুঝলাম, কিন্তু ওকে মানুষ তোমাকেই করতে হবে। শোনো এসব শখের কাজ ছেড়ে বাড়িতে সময় বেশি দাও। পুরুষ মানুষ হওয়ার চেষ্টা করো না।

নারীরা যতই কাজ করুক সমাজ বা সংসারের জন্য তাদের এরকম হাজরো প্রশ্নের মোকাবেলা করতেই হয়। নারীকে যদি শুধু নারী না ভেবে তাকে মানুষ হিসেবে ভাবা যায় তাহলে হয়তো সমাজ অনেক এগিয়ে যেতো। আধুনিক যুগে এসেও কি নারীরা স্বাধীন?

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত