প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

সিরিয়ায় সাংবিধানিক কমিশন গঠনে ঐক্যমত

সাইদুর রহমান: যুদ্ধবিধ্বস্ত সিরিয়ায় শান্তি প্রতিষ্ঠার জন্য রাশিয়ার মধ্যস্থতায় শোচিতে অনুষ্ঠিত সম্মেলনে অংশগ্রহণকারীরা দেশটিতে সংবিধান প্রণয়নে একটি কমিশন গঠনে একমত হয়েছেন বলে ঘোষণা দিয়েছেন রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই ল্যাভরভ। তবে সম্মেলন বর্জনকারী বিরোধীদের বড় অংশই প্রস্তাবটি প্রত্যাখ্যান করেছে।

সিরিয়ায় নিযুক্ত জাতিসংঘের বিশেষ দূত স্টিফেন ডি মিস্টুরা বলেন, শোচিতে অনুষ্ঠিত দুই দিনের সম্মেলনে অংশগ্রহণকারীরা সিরিয়ার সংবিধান সংশোধন করতে একটি কমিটি গঠনে সম্মত হয়েছেন। ১৫০ সদস্যের এই কমিটিতে সরকার ও বিরোধী কর্মকর্তাদের অন্তর্ভূক্ত করতেও তারা রাজি।

ডি মিস্টুরা বলেন, জাতিসংঘের নেতৃত্বে জেনেভায় কমিটির ব্যাপারে চূড়ান্ত চুক্তি হবে। কিন্তু সম্মেলনের চূড়ান্ত বিবৃতিতেও প্রেসিডেন্ট বাসার আল আসাদের ভাগ্যে কী ঘটবে তা বলা হয়নি। এর আগে এই বিষয়টি নিয়েই আলোচনায় সবচেয়ে বেশি কথা হয়েছে।

সিরিয়ার প্রধান বিরোধীগোষ্ঠী সিরিয়ান সমঝোতা কমিশন (এসএনসি) অভিযোগ করেছে, আসাদ ও রাশিয়া সামরিক শক্তি ব্যবহার অব্যাহত রেখেছে আর সত্যিকার সমঝোতা করার আগ্রহ দেখাচ্ছে না।

এসএনসি’র মুখপাত্র আলরাহিবি বলেন, ‘আমরা এই পর্যায়ে কোন ধরনের সাংবিধানিক কমিশন গঠনের প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করছি।’

আল রাহিবি বলেন, তার পরিবর্তে গোষ্ঠীটি চায় সরকার ও বিরোধীরা মিলে প্রথমে একটি অন্তর্বর্তী সরকার গঠন করবে। ওই সরকারের মেয়াদে সিরিয়ার সব জনগণের প্রতিনিধি নিয়ে একটি সাংবিধানিক কমিটি গঠন করা যেতে পারে।

তিনি আরও বলেন, ওই সাংবিধানিক কমিটি তখন একটি খসড়া সংবিধান প্রণয়ন করবে। তারপর অবাধ ও স্বচ্ছ ভোটাভুটির মাধ্যমে তা অনুমোদন দেওয়া হবে।

তবে বিরোধীপক্ষের অংশগ্রহণ ছাড়া শোচির সমঝোতা চুক্তি সিরিয়ার যুদ্ধ বন্ধে কোন কাজে আসবে না বলে মনে করছেন সংশ্লিষ্ট বিশেষজ্ঞরা। সূত্র : আল-জাজিরা

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত