প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

আমদানিতেই মেটাতে হয় ভোজ্যতেলের বিশাল ঘাটতি

মতিনুজ্জামান মিটু : গবেষণা ও সম্প্রসারণ প্রতিষ্ঠান এবং প্রকল্প সবই আছে তবুও আমদানিতেই মেটাতে হয় বাংলাদেশের তৈলবীজের বিশাল ঘাটতি। দেশের চাহিদা পূরণে প্রতি বছর বিপুল অংকের বৈদেশিক মুদ্রার বিনিময়ে আমদানি করা হয় প্রচুর ভোজ্য তেলের বীজ। নিজস্ব উৎপাদনে মেটে দেশের চাহিদার মাত্র এক তৃতীয়াংশ।

বাংলাদেশ কৃষি গবেষণা ইনস্টিটিউট সূত্র জানিয়েছে, বাংলাদেশে তৈলবীজ ফসলের যথেষ্ট ঘাটতি রয়েছে। দেশে বর্তমানে ভোজ্যতেলের চাহিদার। এখানকার জমিতে বহু বছর ধরে প্রধান তৈলবীজ ফসল সরিষা, তিল, চীনাবাদাম, সয়াবীন ও সুর্যমুখী চাষ হয়ে আসছে। বর্তমানে ৭.৯৭ লক্ষ হেক্টর জমিতে ৯.৬৫ লক্ষ মেট্রিক টন তৈলবীজ উৎপাদিত হয়ে থাকে।

বাংলাদেশে ভোজ্য তেলের ঘাটতি মেটাতে সরকারের পক্ষ থেকে বরাবরই সার্বিক উদ্যোগ নেয়া হয়ে থাকে। এই উদ্যোগে বাংলাদেশ কৃষি গবেষণা ইনস্টিটিউট (বারি) তৈলবীজের সর্বমোট ৪১টি জাত উদ্ভাবন করেছে। এর মধ্যে সরিষার ১৭ টি, চীনাবাদামের ১০টি, তিলের ৪টি, সয়াবিনের ৬টি, সূর্যমুখীর ২টি এবং তিসি, গর্জন তিল এবং কুসুম ফুলের ১টি করে জাত রয়েছে।
সরিষার জাতের মধ্যে বারি সরিষা-৯, বারি সরিষা-১৪, বারি সরিষা-১৫ এবং বারি সরিষা-১৭ (ব্রাসিকা রাপা) উচ্চফলনশীল। স্বল্পমেয়াদি এসব সরিষায় হেক্টর প্রতি ফলন হয় ১.৪ মেট্রিক টন থেকে ১.৮ মেট্রিক টন। ৪০ থেকে ৮৫ দিনের মধ্যেই এইসব জাতের সরিষা ঘরে তোলা যায়। এছাড়া বারি সরিষা-১৪, বারি সরিষা-১৫ এবং বারি সরিষা-১৭ এর বীজের বর্ণ হলুদ হওয়াতে তেলের পরিমাণ বাদামী বর্ণের সরিষার তুলনায় ৩-৪ ভাগ বেশি। বারি সরিষা-৭, বারি সরিষা-৮ এবং বারি সরিষা-১৩ (ব্রাসিকা নেপাস) উচ্চ ফলনশীল। হেক্টরে উৎপন্ন হয় ২.২ থেকে ২.৮ মেট্রিক টন। ৯০ থেকে ৯৫ দিনের মাথায় মধ্যম মেয়াদি এই জাতগুলোর ফলন ঘরে তোলা যায়। বারি সরিষা-১১ এবং বারি সরিষা-১৬ (ব্রাসিকা জুনসিয়া) উচ্চ ফলনশীল (২.০-২.৫ টন/হেক্টর), জীবন কাল ১১০-১১৫ দিন এবং দেরীতে বপন উপযোগী। মধ্যম মাত্রার এ জাত দু’টি লবণাক্ততা ও খরা সহিষ্ণু। বারি সরিষা-১৭ সর্বশেষ উদ্ভাবিত জাত এবং এটি হেক্টরে ১.৭ থেকে ১.৮ মেট্রিক টন ফলন দিয়ে থাকে এবং বীজের বর্ণ হলুদ বিধায় তেলের পরিমাণ ৩-৪ ভাগ বেশি। জাতটির জীবনকাল ৮০-৮৫ দিন।

বারি চীনাবাদাম-৫, বারি চীনাবাদাম-৬, বারি চীনাবাদাম-৭, বারি চীনাবাদাম-৮ ও বারি চীনাবাদাম-৯ উচ্চ ফলনশীল (হেক্টরে ২.৫-২.৮ মেট্রিক টন) এবং সারাদেশে চাষাবাদের উপযোগী। স্বল্প মেয়াদের বারি চীনাবাদাম-৮ ও ৯ চরাঞ্চলে চাষ উপযোগী। বারি তিল-৩ ও ৪ উচ্চ ফলনশীল হেক্টরে ১.৪-১.৫ মেট্রিক টন)। বারি তিল-৪ জাতটি তিল উৎপাদন অঞ্চল ছাড়াও মধ্যম মাত্রার লবণাক্ত এলাকায় বিশেষ করে দক্ষিণাঞ্চলে চাষাবাদের উপযোগী।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ