শিরোনাম
◈ মোহাম্মদপুরে পুলিশের অভিযানে রেস্টুরেন্টের মালিক ও ম্যানেজারসহ ৩৫ জন আটক ◈ ড. ইউনূসের বিরুদ্ধে মামলায় শ্রম আইনের অপপ্রয়োগের আশংকা রয়েছে: মার্কিন রাষ্ট্রদূত  ◈ ২৪ শতাংশ বাসেরই ফিটনেস নেই: টিআইবি ◈ সুলতানস ডাইন রেস্টুরেন্ট সিলগালা করলো রাজউক ◈ ব্রহ্মপুত্রের বালুতে হাজার হাজার কোটি টাকার খনিজ সম্পদের সন্ধান ◈ সদ্য কারামুক্ত বিএনপি নেতা আমিনুল হকের বাসায় মঈন খান  ◈ জারদারি নাকি আচাকজাই, কে হবেন পাকিস্তানের পরবর্তী প্রেসিডেন্ট ◈ [১] মিয়ানমারের রাখাইনে আরেকট সেনাঘাঁটি  দখল করেছে আরাকান আর্মি  ◈  নাশকতার মামলায় দণ্ডিত বিএনপি নেতা হাফিজ উদ্দিন কারাগারে ◈ দুইটি বিদেশি পিস্তল, ৮১ রাউন্ড গুলিসহ সেই শিক্ষক গ্রেপ্তার

প্রকাশিত : ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২২, ০৪:৪১ দুপুর
আপডেট : ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২২, ০৪:৪১ দুপুর

প্রতিবেদক : নিউজ ডেস্ক

পরকিয়ার জেরে স্বামীর হাতে স্ত্রী খুন

মোস্তাক আহমেদ মনির, সরিষাবাড়ী (জামালপুর) :  সরিষাবাড়ীতে পরকিয়ার জেরে স্বামী ও শশুর বাড়ীর লোকদের হাতে সিমা আক্তার (২২) নামে এক সন্তানের জননী হত্যার ঘটনা ঘটেছে। সোমবার রাত ৮ টার দিকে উপজেলার ডোয়াইল ইউনিয়নের ডোয়াইল গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত সিমা আক্তারের চার মাস বয়সী একটি ছেলে আছে। পুলিশ মধ্যরাতে মরদেহ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। ঘটনার পর থেকে স্বামী জুয়েল রানা ও তার পরিবার পলাতক আছে।

নিহত সিমার দাদা ছাত্তার ভূইয়া ও স্থানীয় সুত্রে যায় যায়, প্রায় দুই বছর আগে উপজেলার ডোয়াইল ইউনিয়নের ডোয়াইল গ্রামের মৃত নাজের আলীর ছেলে জুয়েল রানার সাথে ওই ইউনিয়নের চর বালিয়া গ্রামের সুরুজ ভূইয়ার মেয়ে সিমা আক্তারের সাথে বিয়ে হয়।

বিয়ের আগে থেকেই জুয়েল তার বড় ভাই শামিমের স্ত্রী রেখার সাথে পরকিয়ায় জড়িয়ে পড়ে। বিষয়টি জানাজানি হলে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে বিরোধ বাধে। এ নিয়ে সোমবার রাত ৮ টার দিকে জুয়েলের সাথে ঝগড়া শুরু হয়। একপর্যায়ে স্বামী জুয়েল সিমাকে বেদড়ক মারধর করে।

এতে সিমা গুরুতর আহত হলে পাশ্ববর্তী ধনবাড়ী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়ার পথে কেন্দুয়া নামকস্থানে তার মৃত্যু হয়। প্রকৃত ঘটনা ধামাচাপা দিতে বিদ্যুৎপৃষ্ট হয়েছে বলে প্রচার চালায় শশুর বাড়ীর লোকজন।

সিমার লাশ নিয়ে বাড়ি ফেরার পথে ডোয়াইল বাজার এলাকায় মেয়ের বাবা ও তার পরিবারের লোকজন সিমাকে দেখতে চায়। এতে আপত্তি জানায় জুয়েল। এ নিয়ে দুই পরিবারের মধ্যে রাস্তায় ধস্তাধস্তি হয়। পরে লাশ বাড়িতে এনে ঘরে রেখে জুয়েল ও তার পরিবারের লোকজন গা-ঢাকা দেয়।

এ ব্যাপারে সরিষাবাড়ী থানার ভারপ্রাপ্ত অফিসার মোহাম্মদ মহব্বত কবীর বলেন, স্বামীর হাতে স্ত্রী হত্যার ঘটনায় রাতে আমিসহ সঙ্গীয় ফোর্স ঘটনাস্থলে যাই ।

বিভিন্ন স্থান থেকে প্রাপ্ত তথ্য সংগ্রহ করি। এসময় নিহতের লাশ উদ্ধার করে থানায় আনা হয়। পরে মঙ্গলবার সকালে ময়নাতদন্তের জন্য জেলা মর্গে পাঠানো হয়।

এ ঘটনার থানায় হত্যা মামলা দায়ের করা হয়েছে। ঘটনার পর থেকে জুয়েল ও তার পরিবারের লোকজন পলাতক আছে। তাদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে। সম্পাদনা: আল আমিন 

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়