প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

হাতিরঝিলে শুরু হচ্ছে ‘লাল-সবুজের মহোৎসব’

নিউজ ডেস্ক : অর্থনৈতিক অগ্রগতি কিংবা সামাজিক সূচকের শক্তিশালী অবস্থান, দুর্বল এক শিশুরাষ্ট্র থেকে বিশ্বের অন্যতম প্রতিশ্রুতিশীল অর্থনৈতিক শক্তি, পর র্নিভরতা থেকে বেরিয়ে এসে আত্বনির্ভরতায় বলীয়ান হয়ে ওঠা বাংলাদেশের ৫০ বছরের গল্পটা সফলতার, অর্জনের। বাংলানিউজ

যাদের আত্মত্যাগের বিনিময়ে বিজয় এসেছে, যে মহান নেতার নেতৃত্বে মিলেছে বাঙালির নিজস্ব মানচিত্র, যার সুদক্ষ শাসনে দেশ উঠে এসেছে উন্নয়নের মহাসড়কে, তাদের সবার প্রতি বিনম্র কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করতে বাংলাদেশের শীর্ষ বাণিজ্যিক সংগঠন এফবিসিসিআই আয়োজন করেছে ১৬ দিনব্যাপী ‘লাল-সবুজের মহোৎসব’।

বুধবার (১ ডিসেম্বর) থেকে হাতিরঝিলের অ্যাম্ফিথিয়েটারে শুরু হবে এ মহোৎসব। এদিন সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় ভার্চ্যুয়ালি এ আয়োজনের উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

অন্যান্য দিনের অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে সশরীরে উপস্থিত থাকবেন জাতীয় সংসদের স্পিকার ও মন্ত্রীরা।

এছাড়া উদ্বোধনী অনুষ্ঠানসহ প্রতিদিনের আয়োজনে বিশেষ অতিথি হিসেবে সশরীরে উপস্থিত থাকবেন প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি শিল্প ও বিনিয়োগ উপদেষ্টা সালমান এফ রহমান।

অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব করবেন ও স্বাগত বক্তব্য দেবেন এফবিসিসিআই’র সভাপতি মো. জসিম উদ্দিন।

এফবিসিসিআই’র বিজয় উৎসবের সার্বিক সহযোগিতা করছে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন। প্রতিদিনের অনুষ্ঠানের শুভেচ্ছা বক্তব্য দেবেন ডিএনসিসির মেয়র মো. আতিকুল ইসলাম।

১৬ দিনের মহা উৎসব
ডিসেম্বর ১: স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্রের শিল্পীদের নিয়ে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও আতশবাজি।
ডিসেম্বর ২: শিশু কিশোর ও বিশেষ শিশুদের অংশগ্রহণে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।
ডিসেম্বর ৩: নারীদের অংশগ্রহণে বিশেষ অনুষ্ঠান।
ডিসেম্বর ৪: নজরুল উৎসব।
ডিসেম্বর ৫: রবীন্দ্র উৎসব।
ডিসেম্বর ৬: নৃত্য উৎসব।
ডিসেম্বর ৭: অঞ্চলভিত্তিক অনুষ্ঠান, ঢাকা ও ময়মনসিংহ বিভাগ।
ডিসেম্বর ৮: অঞ্চলভিত্তিক অনুষ্ঠান, চট্টগ্রাম ও রংপুর বিভাগ।
ডিসেম্বর ৯: অঞ্চলভিত্তিক অনুষ্ঠান, রাজশাহী ও বরিশাল বিভাগ।
ডিসেম্বর ১০: অঞ্চলভিত্তিক অনুষ্ঠান, খুলনা ও সিলেট বিভাগ।
ডিসেম্বর ১১: সশস্ত্র ও পুলিশ বাহিনীর সদস্যদের অংশগ্রহণে অনুষ্ঠান।
ডিসেম্বর ১২: লোকসংগীত।
ডিসেম্বর ১৩: চলচ্চিত্র তারকাদের অংশগ্রহণে অনুষ্ঠান।
ডিসেম্বর ১৪: মঞ্চনাটক।
ডিসেম্বর ১৫: কনসার্ট।
ডিসেম্বর ১৬: রাষ্ট্রীয় অনুষ্ঠান সরাসরি সম্প্রচার ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও আতশবাজি।

সর্বাধিক পঠিত