প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] নিখোঁজ পুলিশ কর্মকর্তার সন্ধান চাইলেন স্ত্রী

জেরিন আহমেদ: [২] শনিবার (৯ অক্টোবর) সকালে পটুয়াখালী প্রেসক্লাব মিলনায়তনে আয়েজিত সংবাদ সম্মেলনে এ দাবি জানান স্ত্রী মোসা. নাজমা সুলতানা । এসময় লিখিত বক্তব্যে সাংবাদিকদের জানান, তার স্বামী মো. আনোয়ার হোসেন কুমিল্লা জেলা পুলিশের উপপরিদর্শক হিসেবে কর্মরত অবস্থায় গত ২৬ আগস্ট থেকে নিখোঁজ রয়েছেন। এ বিষয়ে গত ১২ সেপ্টেম্বর বরিশাল কোতোয়ালি থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করা হয়।

[৩] নাজমা সুলতানা বলেন, এর আগে আনোয়ার হোসেন বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশের কাউনিয়া থানায় কর্মরত অবস্থায় গত বছরের ২৭ মে করোনা আক্রান্ত হয়ে গুরুতর অসুস্থ হন। করোনা মুক্ত হলেও পরবর্তীতে তিনি বিভিন্ন জটিল রোগে ভুগছিলেন। তখন তিনি বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশের পুলিশ কমিশনার মো. শাহাবুদ্দিনের কাছে থানার পরিবর্তে পুলিশ লাইন কিংবা পুলিশ কন্ট্রোল রুমে বদলির আবেদন করেন। সময় টিভি

[৪] তিনি আরও বলেন, সর্বশেষ চলতি বছরের পহেলা জানুয়ারি হোয়াটসঅ্যাপ নাম্বারে মেসেজ করার অপরাধে ক্ষিপ্ত হয়ে পুলিশ কমিশনার তাকে বরিশাল থেকে রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলায় বদলি করেন। পরে আনোয়ার হোসেন পুলিশ কমিশনারের কাছে শারীরিক ও মানসিক সমস্যার কথা বিবেচনা করার জন্য অনুরোধ জানাতে গেলে তার বিরুদ্ধে একটি বিভাগীয় মামলা করা হয়।

[৫] পরিবারের প্রয়োজনে অসুস্থ থাকা অবস্থায়ই রাঙ্গামাটি জেলার বাঘাইছড়ি থানায় কিছুদিন চাকুরি করার পর তার হার্টের ব্লক, চোখে কম দেখা, কথা বললে মাথায় প্রচন্ড ব্যাথা, ফুসফুসে সমস্যা, কিডনিতে সমস্যা, পাইলসের সমস্যাসহ শারীরিকভাবে দুর্বল হয়ে পড়েন বলে জানান নাজমা।

[৬] সুস্থ হওয়ার পরে তাকে বেতন ভাতা পরিশোধ না করেই আরেকটি বিভাগীয় মামলা দিয়ে গত ১৭ আগস্ট কুমিল্লায় বদলি করা হয়। এতে তিনি মানসিক ভারসাম্য হারিয়ে ফেলেন এবং গত ২৬ আগস্ট থেকে নিখোঁজ হন। এ অবস্থায় তার খোঁজ এবং চিকিৎসার ব্যবস্থা না করেই বিভাগীয় মামলা চালানো হচ্ছে। প্রধানমন্ত্রীর নিকট এর সুষ্ঠু প্রতিকার চান নাজমা সুলতানা।

সর্বাধিক পঠিত