প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সাজসজ্জা-ফিরেছে প্রাণচাঞ্চল্যতা, বাইরে উপেক্ষিত অভিভাবকদের স্বাস্থ্যবিধি

শরীফ শাওন: [২] করোনা মহামারির কারণে দীর্ঘ দেড় বছর পর আজ স্বাস্থ্যবিধি মেনে খোলা হয়েছে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। প্রবেশপথে শারীরিক দূরত্ব নিশ্চিত করতে লাইন ও গোল দাগের ব্যবহার, তাপমাত্রা পরিমাপক যন্ত্র, হাত ধোয়ার ব্যবস্থা ও হ্যান্ড সেনিটাইজার রাখা হয়েছে। মাস্ক পরিধান বাধ্যতামূলক করে শ্রেণিকক্ষে বসার স্থানে ৩ ফুট দুরত্ব রাখা হয়েছে। এছাড়াও আনন্দঘন পরিবেশ তৈরিশে রঙিন কাগজ, জরির মালা, কাগজের ফুল ও বিভিন্ন রঙের বেলুন দিয়ে বিদ্যালয় সাজানোর পাশাপাশি শিক্ষার্থীদের ফুল-চকলেট দিয়ে বরণ করেছে প্রতিষ্ঠানগুলো।

[৩] রোববার রাজধানীর ভিকারুননিসা নূন স্কুল এন্ড কলেজ, সিদ্ধেশ্বরী গালর্স হাই স্কুল, মনিপুর স্কুল এন্ড কলেজ, আইডিয়াল স্কুল এন্ড কলেজের মতিঝিল ও বনশ্রী শাখায় এসকল বিষয় পরিলক্ষিত হয়।

[৪] শ্রেণিকক্ষে ফিরে শিক্ষার্থীদের উল্লাস চোখে পড়ার মতো। ভিকারুননিসার শিক্ষার্থী মনিরা জানান, অনেক দিন পর সহপাঠীদের সঙ্গে দেখা হয়েছে। দীর্ঘদিন ঘরবন্দি থেকে হাঁপিয়ে উঠেছি। আগের মতো ক্লাস করতে পারবো, এটা অনেক আনন্দের। তবে সিদ্ধেশ্বরী গালর্স এর ৮ম শ্রেণির শিক্ষার্থী হাফসা সিদ্দিকি এবং ৯ম শ্রেণির ফারিয়া বিনতে শহিদ জানান, প্রথম দিন ক্লাস না থাকায় আমরা এ আনন্দ থেকে বঞ্চিত হয়েছি।

[৫] বিদ্যালয় প্রাঙ্গন এবং শ্রেণিকক্ষে শিক্ষার্থীদের স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিত করা হলেও বিদ্যালয়ের বাইরে অভিভাবকদের স্বাস্থ্যবিধি ছিল উপেক্ষিত। দল বেধে দাঁড়িয়ে থাকা অভিভাবকদের নিয়ে সমালোচনা করেছেন গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী জাকির হোসেন ও সচেতন অভিভাবকরা। আইডিয়াল স্কুলের বনশ্রী শাখার অভিভাবক মাহাবুবুর রহমান বলেন, প্রথম দিন এমন হলে পরবর্তীতে পরিবর্তন আনা কঠিন হয়ে যাবে। অভিভাবক তানুকা নাগের প্রশ্ন, এভাবে কি শারীরিক দূরত্ব বজায় রাখা যায়?

 

সর্বাধিক পঠিত