প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] রাঙ্গামাটিতে গ্রাম প্রধানকে গুলি করে হত্যা

রাঙামাটি প্রতিনিধি: [২] রাঙামাটির জুরাছড়িতে পাত্তর মণি চাকমা (৬৩) নামে এক ব্যক্তিকে গুলি করে হত্যা করেছে দুবৃত্তরা। রবিবার (১৩ জুন) রাত পোনে নয়টার দিকে উপজেলার ৮ কিলোমিটার দূরে ১নং জুরাছড়ি ইউনিয়নের ৭ নং ওয়ার্ডের লুলংছড়ি এলাকায় ওই গ্রাম প্রধানকে (কার্বারী) অজ্ঞাত এক দল বন্দুকধারি দুবৃত্তরা গুলি করে হত্যা করেছে বলে জানিয়েছেন, রাঙামাটি পুলিশ সুপার মীর মোদ্দাছছের হোসেন ।

[৩] এদিকে ৯ঘন্টার ব্যবধানেও থানায় এখনো কেউ মামলা দায়ের করেন নি বলে জানিয়েছেন, জুরাছড়ি থানার অফিসার ইনচার্জ মো. শফিউল আজম।

[৪] পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, পাত্তর মণি চাকমা তার বাড়ির স্বজনদের সাথে মোবাইল ফোনে কথা বলছিলেন। ঠিক ওই সময় একদল অস্ত্রধারি বাড়ি ঘেরাও করে। পরে ২জন অস্ত্রধারি বাড়িতে ঢুকে খুব কাছ থেকে গুলি করে পালিয়ে যায়। তার মাথার পেছনে ও বাম কাধের পাশে মোট ২টি গুলি লেগেছে। ঘটনাস্থলে তার মৃত্যু হয়েছে।

[৫] অফিসার ইনচার্জ মো. শফিউল আজম বলেন, পুলিশ মরদেহটি উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য রাঙামাটিতে মর্গে পাঠানো হয়েছে। তবে থানায় এখনো কেউ মামলা করেননি।

[৬] ওই এলাকার ইউপি চেয়ারম্যান ক্যানন চাকমা বলেন, জুরাছড়ির প্রায় ৮ কিলোমিটার দূরে ঘটনাটি ঘটেছে। এলাকাটি খুবই দুর্গম এলাকা। ঘটনাস্থলের প্রায় ৬গজ দূরে সেনাবাহিনীর একটি ক্যাম্প রয়েছে। দুর্গম এলাকা হওয়াতে সেখানে মোবাইলের নেটওয়ার্ক সহজে পাওয়া যায় না।

[৭] পুলিশ সুপার মীর মোদ্দাছছের হোসেন বলেন, চলতি বছরের ১৪ মার্চ জুরাছড়িতে নিরাপত্তা বাহিনীর অস্ত্র উদ্ধারের অস্ত্র মামলার অন্যতম সাক্ষী ছিলেন পাত্তর মণি চাকমা । তবে তাকে কোন গ্রুপ গুলি করে হত্যা করেছে এখনো জানা যায়নি। ধারণা করা হচ্ছে তার বিরোধী এক দল তাকে হত্যা করেছে। ঘটনাটির পরপর ঘটনাস্থলে পুলিশের টিম গিয়েছে। পাত্তরমণি চাকমা পেশায় একজন কার্বারী (গ্রাম প্রধান) ছিলেন। এছাড়াও তিনি সেখানকার সেনাবাহিনীর বিভিন্ন কাজ করতো বলে জানা গেছে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত