প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ভুলের পর ভুল করছে সরকার: ডা. জাফরুল্লাহ

ডেস্ক রিপোর্ট : সরকারকে উদ্দেশ করে গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ও ট্রাস্টি ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেছেন, আপনারা ভুল করছেন।

তিনি বলেন, ঈদের আগে গণপরিবহন বন্ধ রাখা ছিল ভুল সিদ্ধান্ত। এতে মানুষের কষ্ট হয়েছে। সরকারের ভুলে অবর্ণনীয় কষ্ট ভোগ করছে মানুষ। ঈদের সময় মহিলারা ঝুলে ঝুলে বাড়ি গেছে, এতবড় অন্যায় কোনদিন হয় নাই। সরকারকে বলছি আপনারা ভুল করছেন, ভুলের পর ভুল করছেন। সরকারের উচিত হবে আন্তঃজেলা বাস-ট্রেন চালু করা ও বিনা পয়সায় ঢাকায় ফেরানোর ব্যবস্থা করা। এবং ঢাকায় ফেরা প্রত্যেক ব্যক্তির জন্য টেস্টের ব্যবস্থা করা।

রোববার (১৬ মে) ‘ফারাক্কা দিবস’ (মজলুম জননেতা মওলানা ভাসানীর ফারাক্কা অভিমুখে লং মার্চ) উপলক্ষে ভার্চুয়াল নাগরিক আলোচনায় তিনি এসব কথা বলেন।

সভাপতির বক্তব্যে ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেন, মওলানা ভাসানী নিজের দেশের সংস্কৃতি, স্বার্থ নিয়ে মজলুম জনগণের সমস্যা নিয়ে সোচ্চার ছিলেন। অন্যদিকে পৃথিবীর জায়গায় জায়গায় অন্যায় অবিচারের বিরুদ্ধে দাঁড়িয়েছেন। আজ অন্তরে মওলানাকে ধারণ করে আমরা এগিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করছি।

প্যালেস্টাইনে ইসরায়েলি হামলার প্রসঙ্গে তিনি বলেন, গত কয়েকদিন যাবত গাজায় শিশু ও মানুষ হত্যা, নির্মমতা, নিষ্ঠুরতা চলছে। আমরা প্রতিবাদে করতে পারি নাই, অন্তত একটা প্রতীকী প্রতিবাদও করি নাই।

তিনি আরেও বলেন, ইসরায়েলের মদদদাতা ভারত আর ‘র’। ইসরায়েলি গোয়েন্দা সংস্থা মোসাদের যন্ত্রপাতি অস্ত্র কারা ব্যবহার করছে এ ব্যাপারে কেউ প্রশ্ন তুলছেন না।

আন্তর্জাতিক ফারাক্কা কমিটির সভাপতি, পরিবেশবিদ, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য অধ্যাপক ড. জসিম উদ্দিন আহমেদ কানাডা হতে যুক্ত হয়ে বলেন, ১৯৭৬ সালের ১৬ মে মজলুম জননেতা মওলানা আবদুল হামিদ খান ভাসানীর ফারাক্কা লং মার্চের আগে বাংলাদেশের কোন রাজনৈতিক বা পরিবেশবিদ ফারাক্কার ভয়াভয়তা নিয়ে কোন কথা বলেন নাই। দূরদর্শী মওলানা মনে করতেন ভারত শুধু এখন ফারাক্কা বাঁধ নির্মাণ করে আমাদের পানি বন্ধ করবে না। ভবিষ্যতে অভিন্ন আন্তর্জাতিক নদীগুলিতে বাঁধ দিয়ে পানি প্রত্যাহার করে বাংলাদেশকে মরুভূমিতে পরিণত করবে। তিনি লং মার্চের আগে বিশ্বের বিভিন্ন দেশের রাষ্ট্র প্রধানদের কাছে ফারাক্কা ভয়াভয়তা নিয়ে চিঠি লিখেন। ফারাক্কা বাঁধের কারণে বাংলাদেশ মরুভূমিতে পরিণত হচ্ছে তার দেখার জন্য ভারতের প্রধানমন্ত্রী ইন্দিরা গান্ধীকেও চিঠি দিয়ে বাংলাদেশ সফর করেতে বলেন। সাবেক এ ভিসি বলেন, আমরা অতীতের মত আন্তর্জাতিক জনমত সৃষ্টির চেষ্টা করছি। তাই আজকে বাংলাদেশে ১৬ মে ‘ফারাক্কা দিবস‘ পালনের মাধ্যমে মওলানা ভাসানীর ‌অসমাপ্ত কাজকে এগিয়ে নিতে সাহায্য করবে। নতুন প্রজন্ম জাগ্রত হবে।

ভাসানী অনুসারী পরিষদের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য জাহাঙ্গীর আলম মিন্টুর পরিচালনায় ভার্চুয়ালি আলোচনা সভায় উপস্থিত ছিলেন, জাতিসংঘের সাবেক পানি বিশেষজ্ঞ ড. এস আই খান, জাতিসংঘের সাবেক অর্থনৈতিক পরিচালক ও অস্ট্রেলিয়ার ওয়েস্টার্ন ও সিডনি বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. আনিসুজ্জামান চৌধুরী, ভাসানী অনুসারী পরিষদের প্রেসিডিয়াম সদস্য আলী ইমাম (নিউয়র্ক), রিটা রহমান (নিউয়র্ক), নিউনেশন পত্রিকার সম্পাদক মোস্তফা কামাল মজুমদার, ভাসানী অনুসারী পরিষদের মহাসচিব শেখ রফিকুল ইসলাম বাবলু, গণসংহতি আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়কারী জোনায়েদ সাকি, ডাকসুর সাবেক ভিপি নূরুল হক নুর, রাষ্ট্র চিন্তার এডভোকেট হাসনাত কাইয়ূম। সূত্র: বার্তা২৪

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত