প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] জীবননগরে যৌতুকের দাবীতে গৃহবধুকে মধ্যযুগীয় নির্যাতন, হাসপাতালে ভর্তি

জামাল হোসেন খোকন: [২] জীবননগর (চুয়াডাঙ্গা):চুয়াডাঙ্গার জীবননগর উপজেলার মিনাজপুরে যৌতুকের দাবীতে এক গৃহবধুকে মধ্যযুগীয় নির্যাতন করা হয়েছে। ঘটনাটি বুধবার সকালে সংঘটিত হয়েছে। নির্যাতনের শিকার গৃহবধুকে জীবননগর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। জীবননগর থানা পুলিশ প্রাথমিক ভাবে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

[৩] জীবননগর উপজেলার সীমান্ত ইউনিয়নেরকয়া গ্রামের দিনমজুর আশাদুল হক বলেন,আমার কন্যা আশুরা খাতুনকে(২৮) গত দশ বছর আগে উপজেলার বাঁকা ইউনিয়নের মিনহাজপুরের পুর্বপাড়ার সিরাজুল ইসলামের ছেলে সাকিল হোসেনের(৩০) সাথে বিয়ে দেয়া হয়। বিয়ের পর তাদের দাম্পত্য জীবনে এক ছেলে ও এক মেয়ে সন্তানের জন্ম হয়। আমার জামাই সাকিল হোসেন ও তার বাবা সিরাজুল যৌতুকের জন্য বিয়ের পর থেকেই আমার উক্ত কন্যাকে নানা ভাবে অত্যাচার নির্যাতন করে আসছিল। আমি কন্যার সুখের কথা চিন্তা করে এ পর্যন্ত নগদ ৭০ হাজার টাকা দিয়েছি। এ ছাড়াও তাদেরকে সাংসারিক বিভিন্ন মালামাল ও আসবাবপত্র দিয়েছি। সম্প্রতি তাদের বিশেষ কাজের জন্য মোটা অংকের টাকার প্রয়োজন হওয়ায় তারা আমার কন্যার নিকট যৌতুক বাবদ এক লাখ টাকা আমার বাড়ী থেকে নিয়ে যাওয়ার জন্য চাপ দিতে থাকে। কিন্তু আমার কন্যা তাদের প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় বুধবার সকাল দশটার দিকে কাঠের চলা ও আধলা ইট দিয়ে নির্মম ভাবে নির্যাতন করে বাড়ীতে আটকিয়ে রাখে। আমরা ঘটনা শুনে আমার মেয়েকে উদ্ধার করে জীবননগর হাসপাতালে ভর্তি করি।

[৪] সীমান্ত ইউনিয়ন পরিষদের সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ড সদস্য মমিন উদ্দিন বলেন,ঘটনা শুনে আমি ঘটনাস্থল থেকে গৃহবধু আশুরাকে মারাত্মক আহত অবস্থায় উদ্ধার করে জীবননগর হাসপাতালে ভর্তি করি। যে ভাবে নির্যাতন করা হয়েছে,তা যে কেউ দেখলে হতবাক হবেন।

[৫] জীবননগর থানার সাব-ইন্সপেক্টর আমির হোসেন বলেন,আমার উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশে আমি ঘটনাস্থলে যাই এবং আমার প্রাথমিক তদন্তে ঘটনার সত্যতা মিলেছে।

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত