প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সিদ্ধান্তকে ইবি শিক্ষার্থীদের প্রত্যাখান

মুরতুজা হাসান: [২] শিক্ষামন্ত্রী আগামী ১৭ মে হল ও ২৪ মে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেয়ার যে সিদ্ধান্ত দিয়েছেন সেই সিদ্ধান্তকে প্রত্যাখান করে পুনর্বিবেচনার দাবি জানিয়েছে ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের (ইবি) শিক্ষার্থীরা। সেই সাথে আগামী ১ মার্চের পূর্বে হল-ক্যাম্পাস খুলে দিয়ে স্থগিতকৃত সকল পরীক্ষা পুনরায় চালু করার দাবি জানান তারা।

[৩] মঙ্গলবার (২৩ ফেব্রুয়ারি) ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের ডায়না চত্বর সংলগ্ন আম বাগানে বেলা সাড়ে ১১টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগের শিক্ষার্থী জিকে সাদিক সংবাদ সম্মেলনে শিক্ষার্থীদের পক্ষে লিখিত দাবিগুলো পাঠ করেন। তিনি বলেন, গত ২২ ফেব্রুয়ারি মাননীয় শিক্ষামন্ত্রী সংবাদ সম্মেলনে আগামী ১৭ মে হল ও ২৪ মে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেয়ার যে সিদ্ধান্ত দিয়েছেন আমরা এই সিদ্ধান্তকে পুনর্বিবেচনা করার দাবি করে এই সিদ্ধান্ত প্রত্যাখান করছি।

[৪] আমরা মনে করি এই সিদ্ধান্ত সাধারণ শিক্ষার্থীদের পরিস্থিতি বিবেচনায় না নিয়েই গ্রহণ করা হয়েছে। কারণ তিনি ভ্যাক্সিন দিয়ে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেয়ার কথা বলেছেন। আমরা বলতে চাই শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের ভ্যাক্সিনের আওতায় আনতে তিন মাস সময় কেন লাগবে সেটা বোধগম্য নয়। আমরা সেই প্রশ্ন শিক্ষামন্ত্রীর কাছে রাখতে চাই।

[৫] শিক্ষামন্ত্রীর ঘোষণার পর ইতোমধ্যে ইবিতে সব ধরণের পরিক্ষা স্থগিত করা হয়েছে। আমরা মনে করি এটি চরম হঠকারী সিদ্ধান্ত। কারণ ইতোমধ্যে অনেক বিভাগের পরীক্ষা চলছে, কিছু বিভাগে পরীক্ষার তারিখ ঘোষণা করা হয়েছে। যার ফলে শিক্ষার্থীরা বাড়ি থেকে এসে মেস বা বাসা ভাড়া নিয়ে ক্যাম্পাসের পার্শ্ববর্তী অঞ্চলে অবস্থান করছে। এমন পরিস্থিতিতে পরীক্ষা বন্ধ করে দিয়ে শিক্ষার্থীদের বিপাকে ফেলা হয়েছে।

[৬] সংবাদ সম্মেলন শেষে প্রশাসন ভবনের সামনে শিক্ষার্থীরা অবস্থান কর্মসূচি পালন করে। এরপর দুপুর ২টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. শেখ আবদুস সালাম এর কাছে আন্দোলনকারীদের একটি প্রতিনিধি দল উপাচার্যের কার্যালয়ে দেখা করে তাদের দাবিগুলো উত্থাপন করেন।

[৭] সার্বিক বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. শেখ আবদুস সালাম জানান, এটি একটি জাতীয় ইস্যু, আমি ব্যক্তিগতভাবে তোমাদের এ দাবির সাথে একমত। আমিও চাই শিক্ষার্থীরা তাদের পরীক্ষা দিক এবং ক্লাস রুমে ফিরে আসুক। কিন্তু আমাকে সরকার এখানে নিয়োগ দিয়েছে, এজন্য সরকারের নির্দেশনার বাহিরে গিয়ে আমি একা কিছু করতে পারিনা। সম্পাদনা: সাদেক আলী

 

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত