প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] রিকি পন্টিংকে ছাড়িয়ে যেতে একটি শতক চাই বিরাট কোহলির

স্পোর্টস ডেস্ক: [২] অস্ট্রেলিয়ার সাবেক তারকা রিকি পন্টিং ও সময়ের অন্যতম সেরা ভারতীয় ব্যাটসম্যান বিরাট কোহলি যৌথভাবে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অধিনায়ক হিসেবে সবচেয়ে বেশি সেঞ্চুরির তালিকায় শীর্ষে। তাই আর মাত্র একবার তিন অঙ্কে পৌঁছাতে পারলেই অতীত-বর্তমানের সব দলনেতাকে ছাড়িয়ে চূড়ায় পৌঁছে যাবেন কোহলি।

[৩] শুক্রবার (৬ ফেব্রুয়ারি) চেন্নাইতে শুরু হয়েছে ভারত ও ইংল্যান্ডের মধ্যকার চার টেস্টের প্রথমটি। প্রথম দিনে অবশ্য ফিল্ডিং করতে হচ্ছে বিশ্রাম কাটিয়ে সাদা পোশাকে ফেরা কোহলি ও তার দলকে। সফরকারীরা ইংলিশরা টস জিতে বেছে নিয়েছে ব্যাটিং। শততম টেস্ট খেলতে নামা জো রুটের সেঞ্চুরিতে তারা দিন শেষ করেছে ৩ উইকেটে ২৬৩ রান তুলে।

[৪] সন্তানসম্ভবা স্ত্রীর পাশে থাকতে সবশেষ অস্ট্রেলিয়া সফরে একটি টেস্ট খেলেই দেশে ফিরেছিলেন কোহলি। ইতোমধ্যে তাদের কোল আলো করে এসেছে কন্যা সন্তান। প্রথমবারের মতো বাবা হওয়ার স্বাদ পাওয়া কোহলি ছুটি শেষে ফিরেছেন দলে। রুটদের বিপক্ষে নিজেদের মাটিতে তিনিই ভারতকে দিচ্ছেন নেতৃত্ব।

[৫] ক্রিকেটের সব ধরনের সংস্করণ (টেস্ট, ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি) মিলিয়ে অধিনায়ক কোহলির সেঞ্চুরির সংখ্যা ৪১টি। মাত্র ১৮৮ ইনিংস লেগেছে তার এতগুলো সেঞ্চুরি করতে। অর্থাৎ গড়ে প্রতি ৪.৫৮ ইনিংসে একটি করে সেঞ্চুরি করেছেন তিনি। পন্টিং ৩২৪ ম্যাচে নেতৃত্ব দিয়ে পেয়েছিলেন কোহলির সমান সংখ্যক সেঞ্চুরির স্বাদ।

[৬] এই তালিকায় দুইয়ে আছেন গ্রায়েম স্মিথ। দক্ষিণ আফ্রিকার সাবেক ক্রিকেটার অধিনায়ক হিসেবে ৩৩ সেঞ্চুরি করেছিলেন ২৮৬ ম্যাচে। তৃতীয় ও চতুর্থ স্থানও অস্ট্রেলিয়ার দুই খেলোয়াড়ের দখলে। সময়ের আরেক সেরা ব্যাটসম্যান স্টিভ স্মিথের দলনেতা হিসেবে আছে ২০ সেঞ্চুরি (৯৩ ম্যাচে), সাবেক তারকা মাইকেল ক্লার্কের আছে ১৯ সেঞ্চুরি (১৩৯ ম্যাচে)।

[৭] ক্লার্কের সঙ্গে যৌথভাবে একই অবস্থানে আছেন ব্রায়ান লারা। ওয়েস্ট ইন্ডিজের এই কিংবদন্তির অবশ্য লেগেছিল ১৭২ ম্যাচ। এই তালিকা দেখেই বোঝা যাচ্ছে, কোহলিকে কোনো তাড়াহুড়োয় যেতে হচ্ছে না। হেসেখেলেই রেকর্ড গড়ার হাতছানি রয়েছে তার সামনে। – ডেইলি স্টার / জি নিউজ

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত