প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] রাজধানীতে র‌্যাব-পুলিশের অভিযানে বিপুল পরিমাণ মাদকসহ গ্রেপ্তার ১৩

সুজন কৈরী : [১] রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে পৃথক পৃথক অভিযান চালিয়ে বিপুল পরিমাণ গাঁজা, ফেন্সিডিল ও হেরোইনসহ ১৩ জনকে গ্রেপ্তার র‌্যাব-২, র‌্যাব-৪, র‌্যাব-১০ ও ডিএমপির গোয়েন্দা বিভাগ।

[২] ডিএমপির গোয়েন্দা ওয়ারী বিভাগের ডেমরা জোনাল টিমের অতিরিক্ত উপ-কমিশনার মো. আজহারুল ইসলাম মুকুল বলেন, রোববার কয়েকজন মাদক ব্যবসায়ী বি-বাড়ীয়ার কসবা থেকে গাঁজা সংগ্রহ করে ঢাকায় এনে বিক্রি করার জন্য যাত্রাবাড়ীর সিটি কর্পোরেশনের কাঁচা মালের আড়তের সামনে অবস্থান করছে বলে সংবাদ পাওয়া যায়। ওই সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে রবিউল হোসেন, দুলাল খাঁন ও লালন খাঁন নামের তিনজনকে গ্রেপ্তার করা হয়। তাদের কাছ থেকে ৫০ কেজি গাঁজা ও তা পরিবহনে ব্যবহৃত একটি পিকআপ জব্দ করা হয়।

[৩] তিনি বলেন, গ্রেপ্তারকৃতরা দেশের সীমান্তবর্তী জেলা বি-বাড়ীয়া থেকে গাঁজা সংগ্রহ করে ঢাকায় এনে রাজধানী ও এর আশপাশের এলাকার বিভিন্ন মাদক ব্যবসায়ীদের কাছে বিক্রি করতো। এ ঘটনায় যাত্রাবাড়ী থানায় মামলা হয়েছে।
র‌্যাব- এর এএসপি মো. আবদুল্লাহ আল মামুন জানান, সীমান্তবর্তী এলাকা থেকে

[৪] বিপুল পরিমান গাঁজা নিয়ে প্রাইভেটকার গাজীপুরের টঙ্গী পূর্ব থানার স্টেশন রোডের মাছিমপুর এলাকায় আসছে। এমন তথ্যে রোববার রাতে ওই এলাকায় অভিযান চালানো হয়। এ সময় সন্দেজ হলে একটি প্রাইভটকারকে থামতে সংকেত দেয়া হয়। কিন্তু প্রাইভেটকার থামিয়ে পালানোর চেষ্টাকালে আশিকুর রহমান (২৪) ও জাবের (২২) নামের দুজনকে গ্রেপ্তার করা হয়। পরে প্রাইভেটকারে তল্লাশি করে ৩টি বস্তার ভিতর থেকে পলিথিনে মোড়ানো ৬০ কেজি গাঁজা পাওয়া যায়। যার বর্তমান বাজারমূল্য আনুমানিক ১৬ লাখ টাকা।

[৫] গ্রেপ্তারকৃতদের জিজ্ঞাসাবাদে জানা গেছে, তারা দীর্ঘদিন ধরে অবৈধভাবে বাংলাদেশে আসা গাঁজা ক্রয় করে ঢাকাসহ বিভিন্ন এলাকায় মাদক ব্যবসায়ী ও সেবনকারীদের কাছে চড়াদামে বিক্রি সরবরাহ করছিলো। ইতোপূর্বে প্রাইভেটকারের কয়েকটি মাদকের চালান ঢাকা ও গাজীপুরে মাদক ব্যবসায়ীদের কাছে হস্তান্তর করেছে। এ ঘটনায় টঙ্গী পূর্ব থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণআইনে মামলা হয়েছে।

[৬] র‌্যাব-৪ এর সহকারী পুলিশ সুপার মো. জিয়াউর রহমান চৌধুরী বলেন, সোমবার ঢাকার আশুলিয়ার বাইপাইল এলাকায় অভিযান চালিয়ে ১০০ গ্রাম হেরোইন ও ৩৫৩ বোতল ফেন্সিডিলসহ দুজন মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার করা হয়। জব্দ করা হয়েছে মাদক পরিবহনে ব্যবহৃত প্রাইভেটকার। গ্রেপ্তারকৃতরা হলো- জুয়েল রানা (২৪) ও কাবুল ইসলাম (৩০)।

[৭] প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা জানিয়েছে, তারা দীর্ঘদিন ধরে লোক চক্ষুর আড়ালে দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে হেরোইন এবং ফেন্সিডিল সংগ্রহ করে আশুলিয়াসহ বিভিন্ন এলাকায় মাদক বিক্রেতাদের কাছে খুচরা ও পাইকারী বিক্রি করছিলো।

[৮] র‌্যাব-১০ এর এএসপি এনায়েত কবির সোয়েব বলেন, সোমবার বিকেলে ব্যাটালিয়নের একটি দল উত্তর যাত্রাবাড়ী এলাকায় অভিযান চালিয়ে ২০ কেজি গাঁজাসহ ৩ জন মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেপ্তার করেছে। গ্রেপ্তারকৃতরা হলো- আব্দুল মজিদ (৩৪), শরীফ (৩২) ও হানিফ মিয়া (২৫)। গাঁজা ছাড়াও তাদের কাছ থেকে ৫টি মোবাইল ফোন ও নগদ ১৩ হাজার ৫৩৫ টাকা জব্দ করা হয়েছে।

[৯] প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেপ্তারকৃতরা জানিয়েছে, তারা পেশাদার মাদক ব্যবসায়ী। দীর্ঘদিন ধরে পরস্পর যোগসাজশে যাত্রাবাড়ীসহ আশপাশের এলাকায় মাদকদ্রব্য সরবরাহ করছিলো।

[১০] র‌্যাব-১০ আরও জানিয়েছে, রোববার রাতে যাত্রাবাড়ীর গোলাপবাগ এলাকায় পৃথক অভিযান চালিয়ে ৩০০ বোতল ফেন্সিডিলসহ ২ জন মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেপ্তার করেছে। গ্রেপ্তারকৃতরা হলো- জহির রায়হান গাজী (৩৮) ও বাবু হোসেন (২৮)। এ সময় তাদের কাছ থেকে মাদক পরিবহনে ব্যবহৃত ১টি প্রাইভেটকার, ২টি মোবাইল ফোন ও নগদ ৬০০ টাকা উদ্ধার করা হয়েছে।

[১১] প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেপ্তারকৃতরা জানিয়েছে, তারা পেশাদার মাদক ব্যবসায়ী। দীর্ঘদিন ধরে পরস্পর যোগসাজশে ঢাকা ও এর আশপাশের এলাকায় মাদকদ্রব্য সরবরাহ করছিলো।

[১২] এছাড়া র‌্যাব-১০ এর অভিযানে রোববার রাতে দক্ষিন কেরাণীগঞ্জের আগানগর এলাকা থেকে ২১০ গ্রাম গাঁজাসহ জুম্মান মিয়া (২৮) নামের একজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। সম্পাদনা: ফরহাদ বিন নূর

সর্বাধিক পঠিত