প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] কমলগঞ্জে “নক্তকুমার” কাব্যগ্রন্থের মোড়ক উন্মোচন

স্বপন দেব : [২] মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে তরুণ কবি নৌশিন আতিয়া রহমানের প্রথম কাব্যগ্রন্থ “নক্তকুমার”এর মোড়ক উন্মোচন করা হয়েছে। শনিবার (২৬ সেপ্টেম্বর) বেলা ১২ টায় ইসলামপুর পিএমপি উচ্চবিদ্যালয় হল রুমে আনুষ্ঠানিকভাবে গ্রন্থটির মোড়ক উন্মোচন করেন ইসলামপুর পিএমপি উচ্চবিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শ্যামাকান্ত সিংহ।

[৩] বিদ্যালয় ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি আব্দুল বশির এর সভাপতিত্বে ও শিক্ষক সুশীল কুমার সিংহ ও স্নেহা সিনহার যৌথ সঞ্চালনায় মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন লেখক-গবেষক আহমদ সিরাজ, এম এ ওহাব উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক পদ্ম মোহন সিংহ, ইসলামপুর পিএমপি উচ্চবিদ্যালয়ের সহকারি প্রধান শিক্ষক ধীরেন্দ্র কুমার সিংহ, কবি ও সাংবাদিক শাব্বির এলাহী, লেখক সাজ্জাদুল হক স্বপন, কবির পিতা উপসহকারি কমিউনিটি মেডিক্যাল অফিসার ডা. আব্দুর রহমান, শিক্ষক আলতাফ মাহমুদ বাবুল, নাজমুল হোসেন প্রমুখ।

[৪] অনুষ্ঠানে মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে লেখক-গবেষক আহমদ সিরাজ বলেন, কবিতা মানব সমাজের প্রথম শিল্পকর্ম। খ্রিস্টপূর্ব ৭ হাজার বছর আগে সুমেরিয় অঞ্চলে প্রথম স্টোনের ট্যাবলেটের উপরে মাটি খনন করে মানব চিন্তায় কাব্যিক ও সাহিত্যিক বহিঃপ্রকাশ যা ঘটেছিল কাব্যের মাধ্যমেই। এর আগে প্রবন্ধ কিংবা উপন্যাসের কোন সুযোগ নেই। সুতরাং আদি কথা হচ্ছে কবিতা। তিনি আরো বলেন, এই গ্রন্থের মাধ্যমে আমাদের অঞ্চলে বাংলা সাহিত্যের অঙ্গনে একজন নতুন কবি জন্ম নিলেন। তাঁর কবিতা ভাবোদ্রেকারী ও সুলিখিত। লেখাপড়ার ফাঁকে একটি সাহসী পদক্ষেপ গ্রহণ করায় লেখিকা নৌশিন আতিয়াকে জানাই আন্তরিক ধন্যবাদ।

[৫] প্রধান শিক্ষক শ্যামাকান্ত সিংহ বলেন, উৎকৃষ্টতম শব্দের উৎকৃষ্টতম বিন্যাস হলো কবিতা। “নক্তকুমার” এই শিরোনামের মধ্যে একটি অনুপ্রাস রয়েছে। কবিতা হয়ে ওঠার বৈশিষ্ট্য এই শিরোনামেই কিছুটা বিস্তৃত হয়েছে। পরবর্তীতে নৌশিনের লেখা আরও সুচিন্তিত কাব্যগ্রন্থ প্রকাশিত হবে প্রত্যাশা করি।

[৬] “নক্তকুমার” গ্রন্থের লেখক নৌশিন আতিয়া রহমান বলেন, এটা আমার লেখা প্রথম কাব্যগ্রন্থ। মনের খেয়ালে কবিতার মতো করে কিছু লিখেছি, মনের মাধুর্যতা মিশিয়ে বর্ণ-শব্দ-বাক্য সাজিয়ে কবিতায় রুপ দেয়ার চেষ্টা করেছি। আমার এই ক্ষুদ্র প্রয়াসে যারা আমাকে অনুপ্রাণিত করেছেন মা-বাবা, ভাই এবং আমার শ্রদ্ধাভাজন শিক্ষক সুশীল কুমার সিংহ আরো অনেকে। সবার প্রতি আমি কৃতজ্ঞ। জানিনা তাদের প্রত্যাশা কতোটুকু পূরণ করতে পেরেছি। আমার এই কবিতাগুচ্ছ পড়ে পাঠকের হৃদয়ে দোলা দিলে এটা হবে আমার লেখনীর সার্থকতা।সম্পাদনা : জেরিন আহমেদ

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত