প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] জাতির জনকের অবদানকে স্বীকার করেই রাজনীতি করতে হবে : জি এম কাদের

শাহীন খন্দকার : [২] জাতীয় পার্টি চেয়াম্যান ও বিরোধী দলীয় উপনেতা জি এম কাদের এমপি বলেছেন, জাতির জনক কোন দল বা গোষ্ঠীর হতে পারে না। জাতির জনক সকল দলের, সকল মানুষের। তিনি বলেন, আজকে যারা রাজনীতি করছে, সকলের উচিত জাতির জনককে মেনে নিয়ে রাজনীতি করা।

[৩] তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালী। বঙ্গবন্ধুর ডাকে এদেশের সকল মানুষ স্বাধীনতা যুদ্ধে অংশ গ্রহণ করেন। দেশ ও মানুষের কল্যাণে বঙ্গবন্ধুর ত্যাগ অপরিসীম। তাঁর জীবনী অনুসরণ করলে সকল সমস্যার সমাধান পাওয়া সম্ভব।

[৪] (১৫ আগষ্ট) জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যান-এর বনানী অফিস মিলনায়তনে জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তৃতায় জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যান বলেন, বঙ্গবন্ধু প্রতিপক্ষকে রাজনৈকিভাবে মোকাবেলা করেছেন কিন্তু কখনো শত্রুতা করেননি।

[৫] প্রতিপক্ষের বিপদেও পাশে দাঁড়িয়ে বঙ্গবন্ধু উদারতার অনুকরণীয় দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন। তিনি বলেন, পল্লীবন্ধু জাতীয় সংসদের বক্তৃতায় বলেছিলেন, জাতীয় পার্টি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে জাতির পিতার মর্যাদা দিতে চেয়েছিলেন। অপ্রত্যাশিত কিছু কারণে তা করতে পারেননি। কিন্তু জাতীয় সংসদে জাতীয় পার্টি ভোট দিয়ে বঙ্গবন্ধুকে জাতির জনকের মর্যাদা দিয়েছে।

[৬] এসময় জি এম কাদের আরো বলেন, স্বাস্থ্যমন্ত্রী এবং স্বাস্থ্য মন্ত্রনালয়ের সমন্বয়ের অভাবে এখন করোনা চিকিৎসা অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে। সংক্রমণ কমছেনা কিন্তু কোভিড হাসপাতালগুলোকে ননকোভিড করা হচ্ছে। কোন কোন হাসপাতাল থেকে করোনা রোগীদের বের করে দেয়া হচ্ছে।

[৭] করোনা রোগীরা অক্সিজেন কিনে বাড়িতে চকিৎসা নিচ্ছে, এটা আমাদের জন্য দূর্ভাগ্যজনক। এসময়ে বক্তব্য রাখেন জাতীয় পার্টি মহাসচিব জিয়াউদ্দিন আহমেদ বাবলু। অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন-কো-চেয়ারম্যান সৈয়দ আবুল হোসেন বাবলা এমপি, মুজিবুল হক চুন্নু এমপি প্রমুখ ।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত