প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অনিল কুম্বলের ১০ উইকেটের ২০ বছর

স্পোর্টস ডেস্ক : আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে এক ইনিংসে ১০ উইকেট শিকারের কীর্তি খুবই বিরল। প্রায় দেড়শ বছরের ইতিহাসে এ কৃতিত্ব দেখাতে পেরেছেন মাত্র দুজন বোলার। ১৯৫৬ সালে প্রথম এ নজির স্থাপন করেন ইংলিশ অফব্রেক বোলার জি লাকার। অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে এক ইনিংসে ৫১.২ ওভারে ২৩ মেডেনসহকারে ৫৩ রানে ১০ উইকেট শিকারের রেকর্ড গড়েন তিনি। এর ৪৩ বছর পর ১৯৯৯ সালে পাকিস্তানের বিপক্ষে এক ইনিংসে সবকটি উইকেট নিয়ে তাতে ভাগ বসান অনিল কুম্বলে। এর ২০ বছর পূর্তি আজ।

পাকিস্তানের বিপক্ষে দিল্লি টেস্টে ক্রিকেট ইতিহাসের দ্বিতীয় এবং সবশেষ ক্রিকেটার হিসেবে ১০ উইকেট নেয়ার কৃতিত্ব দেখান কুম্বলে। ২৬.৩ ওভারের ৯ মেডেনসহকারে ৭৪ রানে ১০ উইকেট নেন তিনি। ঐতিহাসিক ওই টেস্টের প্রথম ইনিংসে ২৫২ রানে অলআউট হয় ভারত। জবাবে অনিল কুম্বলের ৪ উইকেট শিকারে ১৭২ রানে গুটিয়ে যায় পাকিস্তান। ৮০ রানে এগিয়ে ব্যাট করতে নেমে দ্বিতীয় ইনিংসে আরও ৩৩৯ রান যোগ করে টিম ইন্ডিয়া।

এতে পাকিস্তানের সামনে লক্ষ্য দাঁড়ায় ৪২০ রান। সফরকারীদের দ্বিতীয় ইনিংসে আরও ভয়ংকর রূপে আবির্ভূত হন কুম্বলে। ইনিংসের ২৫তম ওভারে শহীদ আফ্রিদিকে তুলে নিয়ে স্বপ্নিল স্পেল শুরু করেন তিনি। পরে তার স্পিন জালে একে একে ধরা পড়েন ইজাজ আহমেদ, ইনজামাম উল হক, মোহাম্মদ ইউসুফ, মঈন খান, সাঈদ আনোয়ার, সেলিম মালিক, মুশতাক আহমেদ, সাকলাইন মুশতাক ও ওয়াসিম আকরাম।

ভারতীয় কিংবদন্তি কুম্বলের স্পিন বিষে নীল হয়ে ২০৭ রানে অলআউট হয় পাকিস্তান। ফলে ২১২ রানের বিশাল জয় পায় স্বাগতিকরা। উল্লেখ্য, প্রথম ইনিংসে ৪ ও দ্বিতীয় ইনিংসে ১০ উইকেট নিলেও ওয়াকার ইউনুসকে আউট করতে পারেননি কুম্বলে। দুই ইনিংসেই অপরাজিত থেকে যান ৯০ দশকে আগুন ঝরানো পেসার।

মহাকাব্যিক টেস্টে দুই ইনিংস মিলিয়ে ১৪ উইকেট নেন কুম্বলে। তবে সেটি এক টেস্টে সর্বোচ্চ উইকেট শিকারের কীর্তি নয়। এটি নিজের দখলে রয়ে গেছে জিম লাকারের। যে টেস্টের প্রথম ইনিংসে ১০ উইকেট নেন, পরের ইনিংসেই ৯ উইকেট ঝুলিতে ভরেন তিনি। দুই ইনিংস মিলিয়ে কিংবদন্তি এ স্পিনারের ১৯ উইকেটই হয়ে আছে এক টেস্টে সর্বোচ্চ উইকেট শিকারের ঘটনা।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত