প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

নানা সংকটে রাজবাড়ী সদর হাসপাতাল, এলাকাবাসী চিকিৎসা বঞ্চিত

মারুফুল আলম : চিকিৎসক সংকটে রাজবাড়ী সদর হাসপাতাল। জেলার এই হাসপাতালে এখনও শূণ্য আছে অর্ধেকের বেশি পদ। ফলে ভোগান্তি পোহাতে হচ্ছে হাসপাতালে চিকিৎসা নিতে আসা রোগীদের। ডিবিসি নিউজ।

রাজবাড়ী সদর হাসপাতালে চিকিৎসকদের ৪২ টি পদের বিপরীতে ডাক্তার আছেন ১৮ জন। সংকট আছে কর্মকর্তা-কর্মচারীরও। শূণ্য আছে বেশ কয়েকটি পদ। সমস্যা আছে চিকিৎসা সেবায় ব্যবহৃত যন্ত্রপাতিরও। ত্রুটিপূর্ণ এক্স-রে মেশিনের পাশাপাশি অকেজো হয়ে আছে আলট্রাসনোগ্রাম মেশিন। পরিচ্ছন্নতাকর্মীর অভাবে যেখানে সেখানে ফেলা হচ্ছে আবর্জনা।

রোগীর স্বজনরা বললেন, এখানে প্রয়োজনের চেয়ে কম সংখ্যক ডাক্তার এবং হাসপাতালের সর্বত্র অপরিষ্কার-অপরিচ্ছন্ন, এমনকি যেখানে খাবার তৈরি করা হয় সেখানেও। রোগী আসলে যে ইমারজেন্সি ডাক্তারের কাছে যাবে, ডাক্তার স্বল্পতার কারণে সে পরিস্থিতি এখানে নেই।

হাসপাতালের ডা. দীপক কুমার বিশ্বাস জানান, ২০০৪ সালে বিশেষ করে ইমারজেন্সি মেডিকেল অফিসারের পদ বিলুপ্ত করা হয়েছে। যার ফলে আমাদেরকে অন্য মেডিকেল অফিসারদের কাছে এক্সট্রা কাজ করাতে হয়। ঢাকার দিক থেকে যারা আসে, তাদের সমস্যা একটু বেশি বলে জানান এই ডাক্তার।

নানা সংকটে এখানকার কার্যক্রম ব্যাহত হলেও শিশু বিভাগে আছে উন্নত পরিবেশ, এমন দাবি এক চিকিৎসকের। এখানকার কর্মকর্তারা এই ওয়ার্ডটাকে ঠিক রেখেছেন এবং রাজবাড়ীবাসীকে এই হাসপাতালমুখী করার চেষ্টায় আছেন।

এদিকে রাজবাড়ী হাসপাতালের নানা অব্যবস্থাপনার জন্য সমন্বয়হীনতাকে দুষছেন স্থানীয় সংসদ সদস্য কাজী কেরামত আলী । ডাক্তার নিয়োগ দেয়ার ক্ষেত্রে অনিয়মকেও সংকটের কারন বলে মনে করেন তিনি। তবে, শিগগিরই মিটবে এই সংকট। দূর হবে ভোগান্তি। এমন প্রত্যাশা এখানকার মানুষের।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত