প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ঘরে ঘরে প্রধানমন্ত্রীর মতো নেত্রীর দরকার : বাঁধন

বিনোদন প্রতিবেদক : একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে তারকাদের উপস্থিতি লক্ষ করা যাচ্ছে। ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের হয়ে তারকাদের নির্বাচনী প্রচারণায় অংশগ্রহণ চোখে পড়ার মতো। নৌকার প্রচারণায় অনেক আগে থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে মাঠে নেমেছেন নানা অঙ্গনের তারকারা। তারমধ্যে আছেন অভিনয় শিল্পী, চিত্রশিল্পী, সংগীত শিল্পী ও বুদ্ধিজীবীরা।

এরমধ্যে লাক্স তারকা আজমেরী হক বাঁধন। অভিনয়ে তিনি মুগ্ধতা ছড়ান। তাকেও নির্বাচনের প্রচারণায় তাকে মাঠে সক্রিয় ভূমিকা পালন করতে দেখা গেছে। একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন নিয়ে কথা বলেন বাঁধন।

একাদশ নির্বাচনে আপনার ভাবনা কী-জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘নির্বাচন সবসময় গুরত্বপূর্ণ। নির্বাচন পাঁচ বছর পর পর হয় সেজন্য একটা বাড়তি উৎসাহ কাজ করে। জনগণ ভোটের মাধ্যমে একজন প্রতিনিধি তৈরি করেন। ’

নৌকায় ভোট দেব, উল্লেখ করে এই লাক্স তারকা বলেন, আওয়ামী লীগ সরকারকে আবারও ক্ষমতায় আনতে হবে। দেশের যে উন্নয়ন করেছেন তার জন্য আবারও এই সরকারকেই আনতে হবে। যেগুলো উন্নয়ন হয়েছে তা সবাই দেখছেন। আবার যেসমস্ত কাজ হাতে নিয়েছেন সেগুলো দ্রুত শেষ করতে হলে আওয়ামী লীগ সরকারের বিকল্প নেই।

তারকারা সরাসরি ভোট চাচ্ছেন তার প্রিয় দলে বিষয়টি আপনি কিভাবে দেখছেন? এমন প্রশ্নের জবাবে বাঁধন বলেন, ‘একটি গণতান্ত্রিক দেশে নাগরিক অধিকার সবার আছে। সেই অধিকার থেকে সবাই নিজ নিজ জায়গা থেকে কাজ করে যেতে পারেন। আর আমার বিষয়ে আমি বলবো, ব্যাক্তিগত কিংবা নিজের জন্য ভোট চাইনি। দেশের সার্থে আমার ভোট চাওয়া।’
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কে নিয়ে বাঁধন বলেন, প্রতিটা ঘরে ঘরে প্রধানমন্ত্রীর মতো একজন জন্মগ্রহণ করেন তাহলে এই দেশ কখনও পিছিয়ে থাকবে না।

প্রধানমন্ত্রীর প্রশংসা করে বাঁধান বলেন, ‘শেখ হাসিনার হাত ধরেই বহিঃবিশ্বে আজ বাংলাদেশ মাথা উঁচু করে দাঁড়িয়েছে। আমি ব্যক্তিগত ভাবে অনেক চ্যালেঞ্জের সম্মুখীন। কেননা আমার প্রাক্তন স্বামী আমার বাচ্চা কে এই দেশ থেকে নিয়ে যেতে চেয়ে ছিলো। সে বলে ছিলো এই দেশে বাচ্চার ভবিষ্যৎ নেই। আমার জন্য আমার দেশ অনেক কিছু তাই আমি চাই দেশের এই উন্নয়ন অব্যাহত রাখার জন্য নৌকায় ভোট চাই।’

অভিনয়ের বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, নির্বাচনের প্রচারণার জন্য এখন কাজে তেমন সময় দিতে পারবো না তাই কাজ করছি না। তবে অনেক ভালো কাজের অফার আসছে। নতুন বছর থেকে আবার কাজ শুরু করবো।’

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত