Skip to main content

নির্বাচন অবাধ গ্রহণযোগ্য হবে বলে ইইউ’র আশা প্রকাশ

তরিকুল ইসলাম : আসন্ন জাতীয় নির্বাচন অবাধ, সুষ্ঠু ও গ্রহণযোগ্য হবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন সফররত ইউরোপীয় ইউনিয়নের (ইইউ) সংসদীয় প্রতিনিধি দলের সদস্যরা। একই সঙ্গে তারা বলছেন, কোনো পর্যবেক্ষক না পাঠালেও নির্বাচনের খোঁজ-খবর রাখতে একটি ছোট দল নির্বাচনের সময় বাংলাদেশে অবস্থান করবে। রোববার ওয়েস্টিন হোটেলে সংবাদ সম্মেলনে সফররত ইউরোপীয় ইউনিয়নের (ইইউ) সংসদীয় প্রতিনিধি দলের সদস্যরা এ কথা বলেন। প্রতিনিধি দলের প্রধান রুপার্ট ম্যাথিউস বলেন, আমরা এখানে নির্বাচন ছাড়াও বাণিজ্য, বিনিয়োগ, সামাজিক অবস্থা, নারী ক্ষমতায়ন এবং সংখ্যালঘুদের বিভিন্ন ক্ষেত্রে পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করতে এসেছি। আমরা দেখেছি এসব ক্ষেত্রে বাংলাদেশ অসামান্য উন্নতি করেছে। ইইউ পার্লামেন্ট মনে করে আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচন সুষ্ঠু, অবাধ এবং গ্রহণযোগ্যভাবে অনুষ্ঠিত হবে। পর্তুগিজ পার্লামেন্টের সদস্য জ্যঁ পেদ্রো গুইমারেস গনক্লেভস বলেন, পর্তুগাল এবং বাংলাদেশ উভয়েই গণতান্ত্রিক দেশ। কিন্তু বাংলাদেশ নিয়ে সেখানে কিছু ভুল ধারণা আছে। এই সফরটি বাংলাদেশ সম্পর্কে ভুল ধারনা দূর করেছে। বাংলাদেশ এমন একটি চমৎকার দেশ যা সত্যিকারভাবে মানবাধিকারকে সম্মান করে। এখানকার শ্রমিক ও কারখানাগুলো বিশ্ব মানের হয়ে উঠেছে। ইইউ সংসদীয় কমিটির ৭ সদস্যের প্রতিনিধি দলে রয়েছেন, বৃটেন থেকে নির্বাচিত রুপার্ট ম্যাথিউস, ইতালির ফ্লুভিও মার্টুসসিলেও, ও অ্যালবার্টো সিরিও, পর্তুগালের জোয়াও পেদ্রো গুইমারেস গনসালভ পেরেরা, সান্দ্রা ক্রিস্টিনা ডি সিকুইরাস পেরেরা ও সুসান গুদ্রো, ফ্রান্সের লরা ডি সিলভা এবং ইউরোপীয় অর্থনৈতিক ও সামাজিক কমিটির সদস্য বৃটেনের মাদি শর্মা।

অন্যান্য সংবাদ