শিরোনাম

প্রকাশিত : ২৫ মে, ২০২৩, ১২:২৫ দুপুর
আপডেট : ২৬ মে, ২০২৩, ০১:৫৩ রাত

প্রতিবেদক : নিউজ ডেস্ক

গাজীপুর সিটি ভোট : কমিশন থেকে সব কেন্দ্রের ফুটেজ দেখতে না পেলেও থাকছে রেকর্ড 

প্রতিটি ভোট কেন্দ্রে সিসি টিভি স্থাপন করে কমিশন থেকে সরাসরি মনিটরিং করছে

এম এম লিংকন: বড় ধরনের কোন অনিয়মন ছাড়াই দেশের সবচেয়ে বড় সিটির ভোট গ্রহণ শেষ হয়েছে। ভোটাররাও সারিবদ্ধভাবে দাঁড়িয়ে উৎসাহ ও আগ্রহ নিয়ে নিজ নিজ পছন্দের প্রার্থীদের ভোট দিয়েছেন। ভোট সুষ্ঠু করতে কমিশন প্রতিটি কেন্দ্রে সিসি টিভি স্থাপন করে কমিশন থেকে সরাসরি মনিটরিং করছে। তবে ভোট শুরু হওয়ার ২ ঘণ্টা পর কমিশন বলছে, সব কেন্দ্রে সিসিটিভি থাকলেও কিছু কিছু কেন্দ্রের ইন্টারনেট না থাকায় সরাসরি সব কেন্দ্রের ফুটেজ পাওয়া যাচ্ছে না। 
 
নির্বাচন কমিশনার মো. আলমগীর বৃহস্পতিবার (২৫ মে) নির্বাচন ভবনে সাংবাদিকদের বলেন, সিসিটিভি ক্যামেরার ক্ষেত্রে যেটা হয়েছে কিছু কেন্দ্রে ক্যামেরা আছে, কিন্তু ইন্টারনেট না থাকার কারণে আমরা ঢাকা থেকে দেখতে পাচ্ছি না। তবে সেগুলোতে রেকর্ডিং হচ্ছে। ভিডিও ফুটেজ আমাদের হার্ডডিক্সে থাকছে। 

সিসিটিভি আড়াই ঘণ্টা ভোট মনিটরিং এর পরে ইসি আলমগীর জানান, ভোট ভাল হচ্ছে, কোন অনিয়মের তথ্য পাওয়া যায়নি। আমরা সিসিটিভি ক্যামেরায় দেখছি শৃঙ্খলার সাথেই ভোট হচ্ছে। আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী যারা আছেন ও নির্বাচন কমিশন থেকে পর্যবেক্ষক হিসেবে যাদের পাঠানো হয়েছে, তাদের কাছ থেকে আমরা যে রিপোর্ট পেয়েছি, তাতে গত আড়াই ঘন্টা যাবত ভালোভাবেই ভোট হচ্ছে। এখন পর্যন্ত খারাপ কোন খবর এখনো পাওয়া যায়নি। 

ইভিএম ও সিসিটিভি ক্যামেরা কাজ না করার বিষয় জানতে চাইলে তিনি বলেন, ইভিএম যেহেতু একটি মেশিন মাঝে মাঝে এটা অকার্যকর হয়ে পড়ে, এটা হতেই পারে। তবে সঙ্গে সঙ্গে সেটা ঠিক করার ব্যবস্থা করা হয়েছে। ৫-১০ মিনিট পরে আবার সবাই ভোট দিতে পারছেন। সকালের শুরুতে দশ-বারোটা ক্যামেরায় আমরা ছবি দেখতে পাইনি তার অনেকগুলি এখন ঠিক হয়ে গেছে।

অনেক কেন্দ্রেই মেয়র প্রার্থী জায়েদার পোলিং এজেন্ট পাওয়া যাচ্ছে না, এ বিষয়ে জানতে চাইলে ইসি আলমগীর বলেন, এ বিষয়ে তো উনি কোন অভিযোগ করেননি। না থাকলে সেটা তার অভিযোগ করা উচিত ছিল। তাদের সঙ্গে আমরা যখন মিটিং করেছি তখন বলেছি, নির্বাচনে যদি কোন ধরনের বাধার সম্মুখীন হন, আমাদের নম্বর দেওয়া আছে। আমাদের জানালে আমরা পুলিশ ও ম্যাজিস্ট্রেটের সহায়তায় ওই কেন্দ্রে এজেন্ট বসার ব্যবস্থা করে দেব। 

আমেরিকা ভিসা সংক্রান্ত নতুন নিয়ম বাংলাদেশের নির্বাচনে কোন প্রভাব ফেলবে কিনা জানতে চাইলে তিনি বলেন, এ বিষয়ে আমি কোন মন্তব্য করবো না। এটা আন্তরাষ্ট্রীয় ব্যাপার। আমাদের দায়িত্ব হল একটি সুষ্ঠু নির্বাচন করা। আমরা তার সবই করব। ওই বিষয়টা কমিশনের অংশ না। সে বিষয়ে কোন রাষ্ট্র বা সরকারের সঙ্গে যে আন্ডারস্ট্যান্ডমেন্ট আছে, সেটা তারা বলতে পারবেন।

এর আগে ইলেকশন কমিশনে কন্ট্রোল রুমে সকাল আটটা থেকে সিসিটিভি ক্যামেরায় ভোট মনিটরিং শুরু করেন ইসি মো. আলমগীর, ইসি রাশেদা সুলতানা ও ইসি আহসান হাবিব। এরপরে নয়টার দিকে তাদের সঙ্গে যোগ দেন ইসি আনিসুর রহমান। সম্পাদনা: মাজহারুল ইসলাম

এমএমএল/এমআই/এইচএ

 

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়