শিরোনাম
◈ কক্সবাজার থেকে আরও ১২৪২ রোহিঙ্গা গেল ভাসানচরে  ◈ ওয়ারীতে রেস্টুরেন্টের আগুন নিয়ন্ত্রণে ◈ তামিম ইকবালের হাত ধরে বিপিএলে বরিশালের প্রথম শিরোপা ◈ বেইলি রোডে ভবনে অগ্নিকাণ্ড: কাচ্চি ভাইয়ের ম্যানেজারসহ আটক ৩ ◈ বিএনপি নেতারা তাদের বিদেশী প্রভুদের দ্বারে দ্বারে ঘুরে বেড়াচ্ছে: ওবায়দুল কাদের ◈ বেইলি রোডের আগুনে নিহতদের দাফনের জন্য ২৫ হাজার টাকা করে দেওয়ার ঘোষণা ত্রাণ প্রতিমন্ত্রীর  ◈ বেইলি রোডে আগুন লাগা ভবনটিতে বিল্ডিং কোড লঙ্ঘন করা হয়েছে: মেয়র তাপস  ◈ মানুষের জীবনের দাম-ই নেই: জি এম কাদেরের শোক ◈ দেশে আইনের শাসন না থাকলে দুর্ঘটনা-বিপর্যয় ঘটতেই থাকে: মির্জা ফখরুল ◈ বেইলি রোডে বহুতল ভবনে আগুনে নিহত ৩৮ জনের মরদেহ হস্তান্তর 

প্রকাশিত : ০৫ ডিসেম্বর, ২০২৩, ১১:৪১ রাত
আপডেট : ০৫ ডিসেম্বর, ২০২৩, ১১:৪১ রাত

প্রতিবেদক : নিউজ ডেস্ক

সিগারেট কোম্পানির কাছে জাবি ছাত্রলীগ নেতাদের চাঁদা দাবি

জাবি প্রতিনিধি: সিগারেটের ডিলার কোম্পানীর কাছে ছাত্রলীগ নেতাদের দুই লাখ টাকা চাঁদা দাবি করেছে জাহাঙ্গীরকবির বিশ্ববিদ্যালয় (জাবি) শাখা ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। কাঙ্খিত পরিমাণ চাঁদা দেয়া না হলে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে সিগারেট বিক্রির বন্ধ করে দেয়ার হুমকি দিয়েছেন তারা। ইতোমধ্যে চাঁদা না পেয়ে সিগারেটের গাড়ি প্রবেশপথেই ঘুরিয়ে দিয়েছে তারা।

এ ঘটনায় ভুক্তভোগী সিগারেটের ডিলার প্রতিষ্ঠানের নাম অগ্রণী ট্রেডিং কোম্পানি। এ কোম্পানিটি সাভার থেকে আশুলিয়া এলাকায় ব্রিটিশ আমেরিকান টোবাকো কোম্পানির সিগারেট সরবরাহ করে থাকে। এখানে শাখা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি আব্দুল্লাহ আল ফারুক ইমরান, সহ-সভাপতি শাহ পরাণ ও যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বিপ্লব হোসাইনের নাম শোনা গেছে। তারা সবাই মীর মশাররফ হোসেন হলের আবাসিক শিক্ষার্থী ও শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি আকতারুজ্জামান সোহেলের অনুসারী।

অগ্রণী ট্রেডিং কোম্পানির বিক্রয় প্রতিনিধি ও দোকানদারদের সূত্রে জানা যায়, বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে প্রতিদিন কোম্পানির তিনটি ভ্যানগাড়ি সিগারেট সরবরাহ করতে আসে। বিশমাইল এলাকা, গেরুয়া-বটতলা ও ইসলামনগর এলাকায় তিনভাগে বিভক্ত হয়ে তারা সিগারেট সরবরাহ করেন।

মঙ্গলবার সিগারেটের ভ্যান আসলে কোম্পানির বিক্রয় প্রতিনিধিকে ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের দেখা করতে বলেন ছাত্রলীগ নেতারা।কোম্পানির ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা তাদের সাথে দেখা করলে তাদের কাছে জাতীয় নিবার্চনের প্রস্তুতি হিসেবে দুই লাখ টাকা চাঁদা দাবি করেন তারা। চাঁদা এমনকি গত দুইদিন সিগারেটের গাড়ি বিশ্ববিদ্যালয়ে ঢুকতে দেননি তারা।

ডেইরি গেইট, বটতলা ও আশেপাশের এলাকার দোকানগুলোতে সাথে কথা বলে এ ঘটনার সত্যতা মিলেছে।  দোকানগুলোতে ব্রিটিশ আমেরিকান টোবাকো কোম্পানির সিগারেট বেনসন, গোল্ডলিফ, হলিউড, লাকি স্ট্রাইক ইত্যাদি পাওয়া যাচ্ছে না।

আলবেরুনী হলের সামনের দোকানদার মামুন জানান, 'তিন দিন যাবৎ সিগারেটের গাড়ি আসেনা। আমরা সাভার থেকে গিয়ে সিগারেট নিয়ে আসতে হচ্ছে। হঠাৎ কেন এমন হলো বুঝতে পারছি না।'

অগ্রণী ট্রেডিং কোম্পানির সেলস ম্যানেজার আল আমিন বলেন, 'আমরা এখানে ডিলারশিপ হিসেবে ক্যাম্পাসে সিগারেট সাপ্লাই দিই। এখানে আমাদের লাভ খুব সীমিত। এ ঘটনা আমাদের কোম্পানির উর্ধ্বতন পযার্য়ে জানিয়েছি। তারা এখানে কিছু দিতে পারবে না বলে জানিয়েছে। কারণ আমরা সরকারকে রাজস্ব দিয়ে ব্যবসায় করি। এর আগে এমন কোন ঘটনার সম্মুখীন হইনি। এখন যদি তাদের টাকা দিতে হয়, তাহলে কর্মচারীদের বেতনের টাকা কেটে রেখে তাদের দিতে হবে। তারা আমার এস আরকে ক্যাম্পাসে ঢুকলে মেরে ফেলার হুমকি দিয়েছে। এমন ঘটতে থাকলে এখানে ব্যবসা ছেড়ে দেয়া ছাড়া আমাদের আর কিছুই করার থাকবে না।’

তবে এ অভিযোগ পুরোপুরি অস্বীকার করেছেন শাখা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি আব্দুল্লাহ আল ফারুক ইমরান। তিনি বলেন, 'সাভারের ওই কোম্পানিটি ক্যাম্পাসে নকল সিগারেট সরবরাহ করতো।‌ বিষয়টি আমরা ধরতে পেরে কয়েকবার তাদেরকে সতর্ক করেছি। এরপরেও ডেইরি গেইটে নকল সিগারেট পাওয়া গেলে তাদেরকে এই নকল সিগারেট ক্যাম্পাসে বিক্রি করতে নিষেধ করা হয়। এখানে চাঁদা দাবির মতো কোনো ঘটনা ঘটেনি। বিষয়টিকে তারা অতিরঞ্জিত করে বর্ণনা করেছে। তারা এটি প্রমাণ করতে পারবে না। তাদের নকল সিগারেটের একটি নমুনা আমার কাছে আছে।'

এই বিষয়ে এক দোকানির সাথে কথা বলে জানা যায়, দীর্ঘ ৪০ বছরে এরকম ঘটনার মুখোমুখি তিনি হননি। তিনি বলেন, সিগারেটের গাড়ি ক্যাম্পাসে প্রবেশ করতে না দিলে আমাদেরকে রাতে সিগারেট নিয়ে আসতে হবে। এতে করে প্রত্যেকটা সিগারেট এর দাম ১ টাকা করে বাড়বে। আর গাড়ি আটকিয়ে চাঁদা আদায়ের বিষয় অস্বীকার করেছে এই বিশ্বাসযোগ্য নয়। এইসব ফাতরামি কথাবার্তা। ক্যাম্পাসে দুইদিন ধরে সিগারেট আসে না। কোন দোকানেই এই সিগারেট পাবেন না।

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়