শিরোনাম

প্রকাশিত : ০৪ ডিসেম্বর, ২০২৩, ০৬:১২ বিকাল
আপডেট : ০৪ ডিসেম্বর, ২০২৩, ০৬:১২ বিকাল

প্রতিবেদক : নিউজ ডেস্ক

ব্রাহ্মণপাড়ায় কীটনাশক খেয়ে কিশোরের আত্মহত্যা

ফারুক আহাম্মদ, ব্রাহ্মণপাড়া: [২] ব্রাহ্মণপাড়ায় কীটনাশক (বিষ) খেয়ে  মো. তিতাস মিয়া (১৭) নামের এক কিশোর আত্মহত্যা করেছে। গত রোববার (৩ ডিসেম্বর) রাতে উপজেলার মাধবপুর ইউনিয়নের বারানী দক্ষিণপাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় থানায় একটি অপমৃত্যুর মামলা হয়েছে।

[৩] নিহত তিতাস মিয়া বারানী দক্ষিণপাড়া গ্রামের আবুল কালামের ছেলে। সে পেশায় একজন রাজমিস্ত্রী হেলপার।

[৪] থানা পুলিশ ও নিহতের বাবা আবুল কালাম জানান, আমার ছেলে তিতাস কিছুদিন পূর্বে রাজমিস্ত্রীর কাজ করতে গিয়ে বৈদ্যুতিক শক খেয়ে শারীরিক ভাবে আহত হয়। এতে সে মানসিক ভাবে অসুস্থ হয়ে পড়ে। এমতাবস্থায় গত রোববার রাতে সে বাহির থেকে কীটনাশক পান করে ঘরে এসে তার চাচীকে জানায় সে কীটনাশক পান করেছে। তাঁর সারা শরীর জ্বালাপোড়া অনুভূতি হচ্ছে। তখন তাকে আমরা ব্রাহ্মণপাড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাই। স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ (কুমেক) হাসপাতালে প্রেরণ করেন। তিতাসকে কুমেক হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। পরে আমরা তাকে বাড়িতে নিয়ে আসি ও বিষয়টি স্থানীয় চেয়ারম্যান ও থানা পুলিশকে জানাই।

[৫] খবর পেয়ে ব্রাহ্মণপাড়া থানার কর্তব্যরত উপপরিদর্শক (এসআই) শিশির ঘোষ ঘটনাস্থলে এসে তিতাসের মরদেহের সুরতহাল রিপোর্ট প্রস্তুত করে থানায় নিয়ে যায়।

[৬] ব্রাহ্মণপাড়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) এসএম আতিক উল্লাহ বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে লাশটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য কুমিল্লা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা যাচ্ছে এটা আত্মহত্যা। এ ঘটনায় একটি অপমৃত্যুর মামলা দায়ের করা হয়েছে। ময়নাতদন্তের রিপোর্ট পেলে মৃত্যুর কারণ জানা যাবে। সম্পাদনা: এ আর শাকিল

প্রতিনিধি/এআরএস

 

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়