শিরোনাম
◈ সাংবাদিকরা চাষাবাদ করছেন কি না, দেখার দায়িত্ব পেলেন শাইখ সিরাজ ◈ মালদ্বীপে আবার জাহাজ পাঠাল চীন  ◈ কারামুক্ত বিএনপি নেতা আলালের স্বাস্থ্যের খোঁজ নিলেন মঈন খান ◈ গাজায় যুদ্ধ নয়, গণহত্যা চলছে: প্রধানমন্ত্রী ◈ শুক্রবার বিশ্বে বাতাস দূষণের তালিকায় ঢাকা ছিল সপ্তম ◈ মিউনিখ নিরাপত্তা সম্মেলনে নির্বাচন  নিয়ে কেউ প্রশ্ন করেনি: প্রধানমন্ত্রী ◈ লোহিত সাগরে হামলায় ব্যবহার করা হবে সাবমেরিন অস্ত্র: হুথি নেতা  ◈ ২১ বলে সেঞ্চুরি করে বিশ্ব রেকর্ড গড়লেন আসজাদ ◈ যারা সরকার উৎখাত করতে চায়, দ্রব্যমূল্য বৃদ্ধি তাদেরই কারসাজি: প্রধানমন্ত্রী ◈ খতনা করাতে গিয়ে শিশুর মৃত্যু: ৩ চিকিৎসকের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে বিএমডিসিকে নির্দেশ

প্রকাশিত : ২৭ নভেম্বর, ২০২২, ০৫:২১ বিকাল
আপডেট : ২৭ নভেম্বর, ২০২২, ০৫:২১ বিকাল

প্রতিবেদক : নিউজ ডেস্ক

হোমনায় হত্যা মামলার ১৭ বছর পর ৩ জনের যাবজ্জীবন 

হোমনায় হত্যা মামলার ১৭ বছর পর ৩ জনের যাবজ্জীবন 

শাহজাজাদা এমরান, কুমিল্লা : কুমিল্লার হোমনায় জায়গা সম্পত্তি নিয়ে বিরোধের জের ধরে হত্যা মামলার ১৭বছর পর কুমিল্লার আদালতে তিন জনের যাবজ্জীবন কারাদন্ডের আদেশ দিয়েছে আদালত।

রোববার  কুমিল্লার  অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালত-৪ এর বিচারক বেগম সেলিনা আক্তার এ রায় দেন। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন মামলার রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী মো. মুজিবুর রহমান বাহার ও সহযোগী এডভোকেট আবু ইউসুফ। 

মামলায় সাজাপ্রাপ্তরা হলেন, কুমিল্লার হোমনা উপজেলার জগন্নাথকান্দি ইউনিয়নের মঙ্গল মিয়ার ছেলে জাকির হোসেন (৩৭), মৃত ফজলু মিয়ার ছেলে কাজল (৪৭) ও মো. কাশেমের ছেলে হানিফ(৪৩)। রায় ঘোষণার  সময় হানিফ পলাতক থাকলেও জাকির ও কাজল উপস্থিত ছিলেন। 

জানা গেছে, ২০০৫ সালের কুমিল্লার হোমনা উপজেলার আবদুল হামিদের ছেলে মনির হোসেন (২১) চুল কাটতে যায়। সেখান থেকে সন্ধ্যা নাগাদ বাড়ি  না ফিরলে খোঁজাখুজি করে স্বজনরা। নিখোঁজের পর কাঠালিয়া নদীতে তার লাশ পায় স্থানীয়রা। এ ঘটনায় হত্যা মামলায় জড়িত অজ্ঞাত আসামিদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন বাবা আবদুল হামিদ। ২০০৬ সালে থানা পুলিশ মামলায় চারজনের নাম উল্লেখ করে চার্জশিট দেয়। পরে তারা স্বীকার করে জায়গা সম্পত্তির বিরোধে মনিরকে তারা হত্যা করেছে। পরে আদালত রবিবার (২৭ নভেম্বর) যাবজ্জীবন কারাদন্ডের আদেশ দেয়। 

মামলার রাষ্টপক্ষের অতিরিক্ত পিপি আইনজীবী মো. মুজিবুর রহমান বাহার বলেন, ঘটনার ১৭ বছর পর এই রায় হয়েছে। রায়ে আমরা সন্তুষ্ট। 

প্রতিনিধি/জেএ

 

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়