শিরোনাম
◈ মিয়ানমারের ২৮৫ জন সেনা ফেরত যাবে, ফিরবে ১৫০ জন বাংলাদেশি: পররাষ্ট্রমন্ত্রী ◈ ভারতে লোকসভা নির্বাচনের প্রথম দফায় ভোট পড়েছে ৫৯.৭ শতাংশ  ◈ ভবিষ্যৎ বাংলাদেশ গড়ার কাজ শুরু করেছেন প্রধানমন্ত্রী: ওয়াশিংটনে অর্থমন্ত্রী ◈ দাম বেড়েছে আলু, ডিম, আদা ও রসুনের, কমেছে মুরগির  ◈ ২০২৫ সালের মধ্যে ৪৮টি কূপ খনন শেষ করতে চায় পেট্রোবাংলা ◈ ভিত্তিহীন মামলায় বিরোধী নেতাকর্মীদের নাজেহাল করা হচ্ছে: মির্জা ফখরুল ◈ বিনা কারণে কারাগার এখন বিএনপির নেতাকর্মীদের স্থায়ী ঠিকানা: রিজভী ◈ অপরাধের কারণেই বিএনপি নেতা-কর্মীদের  বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে: প্রধানমন্ত্রী  ◈ অ্যাননটেক্সকে জনতা ব্যাংকের সুদ মওকুফ সুবিধা বাতিলের নির্দেশ বাংলাদেশ ব্যাংকের ◈ চুয়াডাঙ্গায় তাপমাত্রা ৪১ দশমিক ৩ ডিগ্রি, হিট এলার্ট জারি 

প্রকাশিত : ০২ এপ্রিল, ২০২৪, ১০:৫৯ রাত
আপডেট : ০৩ এপ্রিল, ২০২৪, ১১:১৯ রাত

প্রতিবেদক : নিউজ ডেস্ক

এক বছরেই তিন ঈদ 

ওয়ার হুইল টারনার: [২] এক বছরে তিনটি ঈদের আমেজ নিশ্চয় মুসলিমদের জন্য অত্যন্ত আনন্দের সংবাদ। তবে এমন ঘটনা বিরল। বিরল হলেও এমনটাই ঘটতে যাচ্ছে ২০৩০ সালে। এই বছরে দুটি রমজান এবং ঈদুল আজহার আমেজ পাবেন মুসলিমরা। এমনটাই জানিয়েছেন সৌদি জ্যোতির্বিদ খালেদ আল-জাকাক। সূত্র:সময় টিভি

[৩] সৌদি সংবাদমাধ্যম আল-আরাবিয়ার জানায়, এক বছরে দুবার রমজান মাস পাওয়ার মূল কারণ হলো চান্দ্র এবং সৌর বছরের মধ্যকার পার্থক্য। মুসলিমরা সাধারণত হিজরি সাল গণনা করে থাকেন চাঁদের ওপর ভিত্তি করে। অন্যদিকে গ্রেগরিয়ান ক্যালেন্ডার গণনা করা হয় সূর্যের চারপাশে পৃথিবীর আবর্তনের সময় বিবেচনা করে। একারণে এ দুই বছরের মধ্যে সময়ের পার্থক্য থাকে। 

[৪] সাধারণত হিজরি বছরে দিন থাকে ৩৫৪ থেকে ৩৫৫ দিন এবং সৌর বছরের ওপর ভিত্তি করে তৈরি করা গ্রেগরিয়ান ক্যালেন্ডারে দিন থাকে ৩৬৫ থেকে ৩৬৬ দিন। হিজরি এবং গ্রেগরিয়ান ক্যালেন্ডারে সময়ের তফাৎ থাকে ১০ থেকে ১১ দিন। এ কারণে বছরে বছরে ভিন্ন ভিন্ন ঋতুতে রোজা পালন করতে হয়।  

[৫] এই পার্থক্যের কারণে গ্রেগরিয়ান ক্যালেন্ডারে প্রায় প্রতি ৩০ বছর পরপর একই বছরে দুইবার রমজান পাওয়া যায়। এর আগে ১৯৬৫ সাল, ১৯৯৭ সালে একই বছরে দুইবার রমজান মাস পাওয়া গিয়েছিল। ২০৩০ সালের পর আবার ২০৬৩ সালে এমনটা হবে।  

[৬] হিজরি বছর ১৪৫১ অনুসারে ২০৩০ সালের ৫ জানুয়ারি শুরু হবে সে বছরের প্রথম রমজান। এর ধারাবাহিকতায় ইদুল আজহা অনুষ্ঠিত হবে আরবি দুই মাস দশদিন পর। এবং সেবছরই আবার আরবি হিজরি ১৪৫২ শুরু হবে ২৬ ডিসেম্বর। ফলে একই বছরে দুটি ইদের পাশাপাশি আরেকটি ইদের আগমনী বার্তা পাবেন মুসলিমরা। সম্পাদনা: এস চর্কবর্তী

 

 

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়