প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] মহেশখালীতে যুবলীগ নেতাকে কুপিয়ে ও গুলি করে হত্যা

আয়াছ রনি: [২] কক্সবাজারের মহেশখালী কালামারছড়ায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে যুবলীগের সাবেক সহ-সভাপতিকে কুপিয়ে ও গুলি করে হত্যা করেছে প্রতিপক্ষরা।

[৩] সোমবার (১৮ অক্টোবর) রাত ১০টার দিকে মহেশখালী উপজেলার কালারমার ছড়া বাজারের পূর্বপাশে ফকির জুম পাড়ায় এঘটনা ঘটে। নিহত রুহুল কাদের (৩৫) ওই এলাকার মোহাম্মদ আমিনের পূত্র

[৪] স্থানীয় সূত্রমতে, ওই সময়ে মহেশখালী উপজেলার কালারমার ছড়া বাজার থেকে বাড়ি ফেরার পথে নিহত রুহুল কাদের স্থানীয় ফকিরজুম পাড়ায় পৌছলে পূর্ব শত্রুতার জের ধরে পরিকল্পিতভাবে তাকে সিএনজি থেকে নেমে দা-কিরিচ দিয়ে প্রথমে কুপিয়ে পরে গুলি করে পালিয়ে যায়। এসময় স্থানীয়রা উদ্ধার করে প্রথমে কালারমার ছড়া উপ-স্বাস্থ্যকেন্দ্র ও পরে আশংকাজনক অবস্থায় চকরিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

[৫] নিহত রহুল কাদের মহেশখালী উপজেলা বঙ্গবন্ধু ফাউন্ডেশনের সভাপতি ও কালারমারছড়া ইউনিয়ন যুবলীগের সাবেক সহ-সভাপতি। তার বিরুদ্ধে ও একাধিক মামলা রয়েছে।

[৬] নিহতের ভাই কালারমার ছড়া ইউনিয়ন যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক মোঃ আব্বাস জানান, ‘পূর্বশত্রুতার জের ধরে সন্ত্রাসীরা আমার ভাইকে গুলি ও কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে। আমি আমার ভাইয়ের হত্যাকারীদের দ্রুত গ্রেপ্তার করে আইনের আওতায় আনা জন্য প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করছি।’

[৭] মহেশখালী থানার ওসি মো. আব্দুল হাই জানান, ‘এলাকায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে এ খুনের ঘটনা ঘটতে পারে। পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। আসামিদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চালাচ্ছে পুলিশ।’

[৮] মহেশখালী-কুতুবদিয়ার সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার জাহেদুল ইসলাম জানান, ‘মহেশখালীর কালারমার ছড়ায় আধিপত্য বিস্তার নিয়ে হত্যার ঘটনা ঘটেছে। যিনি নিহত হয়েছেন তার বিরুদ্ধেও একাধিক মামলা রয়েছে। প্রাথমিক ভাবে যারা হত্যার সাথে জড়িত তাদেরকে চিহ্নিত করে আইনের আওতায় আনা হবে।’ সম্পাদনা: হ্যাপি

সর্বাধিক পঠিত