প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

টি২০ বিশ্বকাপ: যেসব জানা জরুরি

স্পোর্টস ডেস্ক: মরুর বুকে ব্যাট-বলের ক্রিকেট উন্মাদনা ‘আইসিসি টি-টোয়েন্টি ওয়ার্ল্ড কাপ’ শুরু হচ্ছে রোববার থেকে। ওমানের রাজধানী মাসকাট শহর থেকে ১৫ কিলোমিটার দক্ষিণ-পূর্বে আল আমিরাত ক্রিকেট স্টেডিয়ামে বিকেলে ৪টায় শুরু হবে ওমান ও পাপুয়া নিউ গিনির ম্যাচ। একই মাঠে রাত আটটায় মাঠে নামবে বাংলাদেশ ও স্কটল্যান্ড। রাইজিংবিডি

দরজায় যখন টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ কড়া নাড়ছে তখন বেশ কিছু জানা জরুরী। 

পাঁচ বছর পর হচ্ছে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ। ২০১৬ সালে সবশেষ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ হয়েছিল ভারতে। ২০২০ সালে এ টুর্নামেন্টটি ভারতে হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু করোনার কারণে এক বছর পিছিয়ে দেওয়া হয়। কিন্তু করোনা পরিস্থিতি ভালো না হওয়ায় ২০২১ সালেও ভারতে বিশ্বকাপ ম্যাচ আয়োজন করতে পারেনি। সংযুক্ত আরব আমিরাত ও ওমানে বসেছে এ আসর।

• বিশ্বকাপের পর্দা উঠছে ১৭ অক্টোবর। ফাইনাল হবে ১৪ নভেম্বর।

• ১৬টি দল বিশ্বকাপে অংশ নিচ্ছে।

• চারটি ভেন্যুতে বিশ্বকাপের ম্যাচগুলি আয়োজন করা হবে।

• দুই পর্বে টুর্নামেন্ট অনুষ্ঠিত হচ্ছে। প্রথম পর্বে থাকছে বাছাই পর্ব। যেখানে ৮ দল মুখোমুখি হবে। দুই গ্রুপ থেকে সেরা চার দল যাবে সুপার টুয়েলভে। এরপর সুপার টুয়েলভ থেকে দুটি করে দল যাবে সেমিফাইনাল। এরপর ফাইনাল।

• টুর্নামেন্টে প্রতিটি জয়ে মিলবে ২ পয়েন্ট। টাই হলে পাওয়া যাবে ১ পয়েন্ট। কোনো ফল বের না হলে ও ম্যাচ পরিত্যক্ত হলে কোনো পয়েন্ট পাওয়া যাবে না।

সমান পয়েন্ট নিয়ে যদি দুই দল গ্রুপ পর্বের খেলা শেষ করে তখন প্রথমে বিবেচনায় আসবে,
– নম্বর অব উইন
– নেট রান রেট
– হেড টু হেড ফলাফল
– অরজিনাল প্রথম রাউন্ড/সুপার ১২ সিডেংস

• প্রথমবারের মতো টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে ডিআরএস ব্যবহার করা হচ্ছে। প্রত্যেক দল দুটি করে রিভিউ পাবে। • ম্যাচ টাই হলে সুপার ওভারে খেলা যাবে। সুপার ওভারেও খেলা টাই হলে লাগাতার ম্যাচ খেলতে থাকবে যতক্ষণ না পর্যন্ত কোনো দল জিতবে। সুপার ওভারে আবহওয়া ও অন্য কোনো প্রতিকূল পরিস্থিতিতে ম্যাচ না হলে টাই বিবেচনা করা হবে। যদি সেমিফাইনালে এমন কিছু হয় তাহলে সুপার টুয়েলভে যে দল পয়েন্ট তালিকার শীর্ষে ছিল তারা ফাইনাল খেলবে। যদি ফাইনালে এমন কিছু হয় তাহলে যুগ্নভাবে দুই দলকে বিজয়ী ঘোষণা করা হবে।

• কোনো রিজার্ভ ডে নেই। আম্পায়াররা ম্যাচ চালানোর সর্বাত্মক চেষ্টা করবেন। ৫ ওভার হলেও ম্যাচ খেলার চেষ্টা চালাতে হবে।

• বিশ্বকাপে যারা ঘরে তুলবে তারা ১.৬ মিলিয়ন ডলার পুরস্কার পাবে। রানার্সআপ পাবে ৮ লাখ ডলার। সেমিফাইনালে হেরে যাওয়া দল ৪ লাখ ডলার করে পাবে।

• দর্শকরা মাঠে ঢুকে খেলা দেখতে পারবে। ধারণক্ষমতার ৭০ শতাংশ দর্শক মাঠে বসে খেলা দেখতে পারবেন।

সর্বাধিক পঠিত