প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] সচিবের অসুস্থ মাকে সহানুভূতি ও আবেগের জায়গা থেকে দেখতে গেছেন কর্মকর্তা-কর্মচারিরা: মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী

আব্দুল্লাহ মামুন: [২] মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী শ. ম রেজাউল করিম জানিয়েছেন, মৎস্য সচিব রওনক মাহমুদের করোনায় আক্রান্ত মাকে হাসপাতালে দেখাশোনার জন্য ২৪ জন কর্মকর্তা-কর্মচারীকে দায়িত্ব দিয়ে চিঠি ইস্যু করার যে খবর সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত হয়েছে তার কোনো সত্যতা নেই।

[৩] সোমবার (২৩ আগস্ট) বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেল ২৪ এর এক প্রতিবেদনে এ তথ্য উঠে আসে। তবে এ বিষয়ে মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের সচিব রওনক মাহমুদ বলেন, কর্মকর্তা- কর্মচারির শিফটিং অনুযায়ী ডিউটির তথ্য সঠিক নয়। কেউ কেউ দেখতে যায় আবার অনেকে যায় না এতোটুকুই। মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তা-কর্মচারিরদের যে শিফটিংয়ে ডিউটির তথ্য উঠে এসেছে তা অসম্ভব।

[৪] মঙ্গলবার (২৪ আগস্ট) দুপুরে সচিবালয়ে সাংবাদিকদের মন্ত্রী বলেন, সচিব তার মায়ের অসুস্থতায় সেবা করার জন্য কাউকে কোনো দায়িত্ব দেননি। মন্ত্রণালয় থেকে কাউকে কোনো দায়িত্ব দেওয়া হয়নি বা চিঠি ইস্যু করা হয়নি। সময়টিভি।

[৫] মন্ত্রী বলেন, সচিব নিজেও অসুস্থ। সহানুভূতি জানাতে অনেকেই হাসপাতালে গিয়েছেন। মন্ত্রণালয়েও খোঁজ নেয়া হয়েছে। এ বিষয়ে কাউকে কোন চিঠি দেয়া হয়নি। এমনকি মন্ত্রণালয় থেকে কোন তালিকাও তৈরি হয়নি। ডিবিসি টিভি।

[৬] মন্ত্রী আরও বলেন, তার (সচিব) ৯৫ বছর বয়সী মা করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন, পরে তাকে ঢাকায় নিয়ে আসা হয়েছে। তিনি অসুস্থ মাকে হাসপাতালে ভর্তি করিয়েছেন। হয়তো মন্ত্রণালয়-অধিদফতরের কেউ কেউ হাসপাতালে সহানুভূতি জানাতে যেতে পারেন, সেখানে তিনি কাউকে কোনো দায়িত্ব প্রদান করেননি।

[৭] মন্ত্রী বলেন, আমি মন্ত্রণালয়ে খোঁজ নিয়ে দেখেছি, মন্ত্রণালয়ের সচিবের মায়ের দেখভাল করার জন্য কাউকে কোনো দায়িত্ব দেওয়া হয়নি। মন্ত্রণালয় থেকে যেসব চিঠি ইস্যু করা হয়, তার একটা দাফতরিক তারিখ থাকে, সময় থাকে এবং কর্মকর্তার সাক্ষর থাকে। মন্ত্রণালয় থেকে খোঁজ নিয়ে দেখেছি, মন্ত্রণালয় থেকে এ ধরনের কাউকে দায়িত্ব দিয়ে কোনো নির্দেশনা জারি করা হয়নি। ঢাকা পোস্ট।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত