প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] কাতার বিশ্বকাপে দেখা যাবে না মেসি ও রোনালদোকে?

স্পোর্টস ডেস্ক : [২] ইউরোপিয়ান সুপার লিগ ঘিরে যখন তুমুল আলোচনা, তখন এই প্রশ্নটা দেখা দিয়েছে বড় হয়ে। ইউরোপের শীর্ষ ১২টি ক্লাব এক জোট হয়ে ইউরোপিয়ান সুপার লিগ আয়োজনে উঠেপড়ে লেগেছে। কিন্তু ইউরোপিয়ান ফুটবলের নিয়ন্ত্রক সংস্থা- উয়েফা ও বিশ্ব ফুটবলের নিয়ন্ত্রক সংস্থা- ফিফা এই সুপার লিগ কনসেপ্টে একেবারেই রাজি নয়।

[৩] দুই সংস্থার পক্ষে পরিষ্কার জানিয়ে দেওয়া হয়েছে, যে সব ক্লাব সুপার লিগে খেলবে, তারাসহ তাদের ফুটবলারদের নিষিদ্ধ করা হবে। সে ক্ষেত্রে জাতীয় দলের হয়েই খেলতে পারবেন না ওই সব ক্লাবের খেলোয়াড়রা। আর সেটি হলে ফিফা বিশ্বকাপ, ইউরোর মতো আসরে দেখা যাবে না এক ঝাঁক তারকাদের।

[৪] এখন সত্যিই যদি ফিফা ও উয়েফার বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করে সুপার লিগ মাঠে গড়ায়, তবে আর্জেন্টিনার জার্সিতে মেসি ও পর্তুগালের জার্সিতে রোনালদোকেও হয়তো আর দেখা যাবে না। অন্তত বর্তমান পরিস্থিতি থেকে এমনই বলা যায়। কারণ যে ১২ ক্লাব সুপার লিগের পক্ষে, তাদের মধ্যে রয়েছে মেসির বার্সেলোনা ও রোনালদোর জুভেন্টাসও।

[৫] গত বছরের অক্টোবর থেকেই সুপার লিগ নিয়ে আলোচনা শুরু হয়েছিল। নতুন এই লিগ আর্থিক ভাবে আরো সমৃদ্ধ করবে ইউরোপের ক্লাবগুলোকে। যার পর তড়িঘড়ি চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ফরম্যাট বদলানোর কথা ভাবতে শুরু করে উয়েফা। ৩৬ দল নিয়ে চ্যাম্পিয়ন্স লিগ করার কথাও বলা হয়েছে। কিন্তু তাতেও পরিস্থিতি পাল্টাচ্ছে না।

[৬] যে ১২ ক্লাব সুপার লিগ আয়োজনে জোট বদ্ধ হয়েছে তার ৬টিই ইংল্যান্ডের। ক্লাবগুলো হলো- ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড, ম্যানচেস্টার সিটি, লিভারপুল, চেলসি, আর্সেনাল ও টটেনহাম। এর সঙ্গে স্পেন ও ইতালি থেকে রয়েছে তিনটি করে ক্লাব।

[৭] স্পেন থেকে রিয়াল মাদ্রিদ, বার্সেলোনা ও আতলেতিকো মাদ্রিদ এবং ইতালি থেকে জুভেন্টাস, ইন্টার মিলান ও এসি মিলান রয়েছে এই তালিকায়। এই ১২ ক্লাবের সঙ্গে আরো ৩টি ক্লাবের নামও শিগগিরই ঘোষিত হবে। মোট ২০টি ক্লাবকে নিয়ে আগামী আগস্ট থেকে সুপার লিগ শুরু করার লক্ষ্য আয়োজকদের। আর ২০২২ সালে অনুষ্ঠিত হবে কাতার বিশ্বকাপ। যে বিশ্বকাপ হতে পারে তারকাশূন্য এক বিশ্বকাপ। – মার্কা / দেশরূপান্তর

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত