প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] টকনাফে মাদকের টাকা নিয়ে বিরোধ ছুরিকাঘাতে যুবক খুন!

ফরিদুল মোস্তফা: [২] টেকনাফে হোয়াইক্যং খারাংখালীতে মাদকের বকেয়া টাকা আদায় নিয়ে কথা কাটাকাটির জেরধরে ছুরিকাঘাতে এক যুবক নিহত হওয়ার ঘটনা ঘটেছে।

[৩] স্থানীয় সূত্র জানায়, (২৮ মার্চ) বিকাল পৌঁনে ৪টারদিকে উপজেলার নয়াবাজার পূর্ব সাতঘরিয়া পাড়ায় প্রধান সড়কের পশ্চিম পাশের রাস্তায় পূর্ব মহেশখালীয়া পাড়ার নুরুল আলম প্রকাশ লেড়ুর পুত্র নুরুল্লাহ (২৫) ১০হাজার পিস ইয়াবা বিক্রির বকেয়া টাকা পাওনা ছিল পশ্চিম সাতঘরিয়া পাড়ার মৃত আব্দুল কাদেরের পুত্র ফরিদুল আলম ফরিদ (২৮) নিকট হতে।

[৪] ফরিদ আলম বকেয়া টাকার জন্য নুরুল্লাহকে উক্ত স্থানে ডাকলে সে সরল বিশ^াসে যায়। তখন টাকা আদায়কে কেন্দ্র করে দুজনার মধ্যে কথা কাটাকাটি হলে ফরিদ ক্ষুদ্ধ হয়ে নুরুল্লাহকে এলোপাতাড়ি ছুরিকাঘাত করে রক্তাক্ত অবস্থায় ফেলে যায়। তখন নুরুল্লাহ চিৎকার করলে পাশর্^বর্তী এলাকার লোকজন খবর পেয়ে তাকে দ্রুত উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য হ্নীলা উপস্বাস্থ্য কেন্দ্রে নিয়ে যায়। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

[৫] এই ঘটনার খবর পেয়ে টেকনাফ মডেল থানার একদল পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে পরবর্তী আইনী পদক্ষেপ গ্রহণের প্রক্রিয়ায় নিয়োজিত রয়েছে।

[৬] টেকনাফ মডেল থানার ওসি মোঃ হাফিজুর রহমান দু’পক্ষের সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন,এই বিষয়ে প্রকৃত ঘটনা বের করার জন্য ঘটনাস্থলে পুলিশ প্রেরণ করা হয়েছে।
[৭] উল্লেখ্য,গত বছর বাহারছড়া শামলাপুর চেকপোস্টে সেনাবাহিনীর অবসর প্রাপ্ত মেজর সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ হত্যাকান্ডের পর প্রত্যেক পাড়া-মহল্লায় মাদক কারবারীরা স্বগৌরবে ফিরে এসে ওপেন সিক্রেটে নানা অপকর্ম করে বেড়াচ্ছে। আইন-শৃংখলা বাহিনীর তৎপরতা কিছুটা শিথিল থাকার সুবাদে মাদক কারবারীসহ নানা অপরাধীরা বীরদর্পে অপরাধ করে বেড়াচ্ছে। তাদের কঠোর হাতে দমনের জন্য সরকারের উর্ধ্বতন মহলের পরিকল্পিত এবং কঠোর পদক্ষেপ দরকার বলে সুশীল সমাজ মনে করছেন। সম্পাদনা: সাদেক আলী

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত