প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] রাজশাহীতে হোম কোয়ারেন্টিনে থাকা নারী কনস্টেবলের আত্মহত্যা

সমীরণ রায় : [২] গত শুক্রবার রাজশাহীতে হোম কোয়ারেন্টিনে থাকা অবস্থায় কীটনাশক পানে মিতা খাতুন (২২) নামের এক নারী পুলিশ কনস্টেবলের মৃত্যু হয়েছে। তিনি রাজশাহী মহানগর পুলিশের এয়ারপোর্ট থানায় কর্মরত ছিলেন। মিতা রাজশাহীর পবা উপজেলার কেচুয়াতৈল গ্রামের মনসুর আলীর মেয়ে।

[৩] মিতার স্বামী শরিফুল ইসলামও পুলিশ কনস্টেবল। তিনিও রাজশাহীর এয়ারপোর্ট থানায় কর্মরত। তাঁর গ্রামের বাড়ি বগুড়ায়।

[৪] পরিবারের সদস্যরা জানিয়েছে, মিতা হৃদরোগ এবং কিডনির মতো জটিল রোগে ভুগছিলেন। তবে কীটনাশক পানের বিষয়ে তারা কোনো কথা বলতে চায়নি।

[৫] রাজশাহী এয়ারপোর্ট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নূরে আলম সিদ্দিকী বলেন, ‘গত ৩০ জুন মিতা বাড়িতে কীটনাশক পান করেন। তখন তিনি ১৪ দিনের হোম কোয়ারেন্টিনে ছিলেন। কী কারণে তিনি কীটনাশক পান করেছিলেন তা জানা যায়নি। তবে কীটনাশক পানের পর তাঁকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায়  শুক্রবার বিকেল সাড়ে ৫টার দিকে তাঁর মৃত্যু হয়। নগরীর রাজপাড়া থানায় একটি অপমৃত্যুর মামলা হয়েছে।

সর্বাধিক পঠিত