প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

কুমিল্লায় পরিবেশ অধিদপ্তরের ছাড়পত্র নেই অবৈধ ইটভাটা গুঁড়িয়ে দিল জেলা প্রশাসন

মাহফুজ নান্টু, কুমিল্লা প্রতিনিধি: পরিবেশের জন্য ক্ষতিকর এমন চুল্লি ও চিমনী ব্যবহার করে ইট তৈরী হচ্ছিলো এনএসবি ইটভাটায়। কয়েকবার লিখিত ও মৌখিক নোটিশ দিলেও তাতে সাড়া দেয় নি ইটভাটার মালিক। আর তাই আজ কুমিল্লা জেলা প্রশাসন ও পরিবেশ অধিদপ্তরের যৌথ অভিযানে গুঁড়িয়ে দেয়া হলো জেলার আদর্শ সদর উপজেলার কালখড়পাড় এলাকার অবৈধ এনএসবি ইটভাটা।

পরিবেশ অধিদপ্তর সূত্রে জানা যায়, নিয়ম অনুযায়ী ১২০ ফিট তথা সনাতন পদ্ধতির সকল ধরনের ইটভাটার কার্যক্রম ২০১১ সাল থেকে স্থগিত করেছে সরকার। সরকারী নির্দেশ কে অমান্য করে কুমিল্লা সদরের কালখারপাড় এনএসবি ব্রিকস টি কোন প্রকার অনুমতি ব্যাতীত পরিচালনা করে আসছে। বারবার তাগদা ও নোটিশ দেয়ার পর ও কোন প্রকার ব্যবস্থা গ্রহন না করায় ফায়ার ব্রিগেডের মাধ্যমে চুল্লিটি নষ্ট করা হয়।এছাড়াও ভেকু মেশিন দিয়ে ইট পোড়ানোর সরঞ্জামাদী ধ্বংস করা হয়।

এ বিষয়ে জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের ম্যাজিস্ট্রেট মেহেদী ইসলাম ও অমিত দত্ত জানান, অবৈধ কার্যক্রমের অভিযোগে ভাটাটি ভেঙ্গে ফেলা হয়েছে।এ ধরনের কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে।

পরিবেশ অধিদপ্তর কুমিল্লার উপ-পরিচালক শওকত আরা কলি বলেন, সনাতন চুল্লি পরিবেশের জন্য মারাত্বক ক্ষতিকর,কুমিল্লার সবগুলো ইটভাটাই পরিবেশ বান্ধব। একমাত্র এনএসবি ভাটাটি সনাতন পদ্ধতির হওয়ায় এবং পরিবেশ অধিদপ্তরে কোন প্রকার অনুমতি না থাকায় একাধিকবার নোটিশ দিয়ে ও কার্যকর কোন ব্যবস্থা গ্রহন না করায় ইটভাটাটি ভেঙ্গে ফেলা হয়েছে। অভিযানে সহযোগিতা করেন জেলা প্রশাসন, ফায়ার সার্ভিস, র‌্যাব-১১ । সম্পাদনা : তন্নীমা আক্তার

সর্বাধিক পঠিত