প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

চাকরির বাজারে জনবল তৈরিতে বৃহৎ ভূমিকা রাখছে বাণিজ্যমেলা

লাইজুল ইসলাম: প্রতিবছর অন্তত এক হাজার শিক্ষার্থী বাণিজ্যমেলায় এক মাসের জন্য কাজ পেয়ে থাকেন। মেলায় আগত নামি-দামি ব্র্যান্ডশপ তাদের সবসময়ের কর্মীদের দিয়ে মেলা খুব বেশি পরিচালনা করেন না। তাই স্টল পরিচালনার জন্য নতুন ছেলে ও মেয়েদের নিয়োগ দেন তারা।

ওয়ালটন শোরুমের ম্যানেজার জানান, এই সময়টায় আমরা প্রায় অর্ধশত লোক নিয়োগ দিয়ে থাকি। এদের মধ্যে কেউ যদি কর্মঠ হয় তবে তাকে আমরা ভবিষ্যতে স্থায়ী নিয়োগ দিয়ে থাকি। ঈগলু আইসক্রিমের মার্কেটিং অফিসার বায়েজিদ হাসান বলেন, অস্থায়ী নিয়োগ প্রাপ্তদের সার্টিফিকেট দেয়া হয়। এছাড়া এখান থেকেও মার্কেটিং ও মানুষের সঙ্গে মেলা-মেশার অভিজ্ঞতা পেয়ে থাকেন। এতে ভবিষ্যত জীবনে চাকরি পেতে শিক্ষার্থীদের সুবিধা হয়।

সেভয় আইসক্রিমে চাকরিরত সুমন ও ফারহানা জানান, এই চাকরির অবিজ্ঞতা সামনের দিনগুলোত চাকরির বাজারে অনেকটা সাহায্য করবে। ওয়ালটনে চাকরিরত তন্দ্রা জানান, এখানে চাকরিতে যে পরিমান সম্মানি পাওয়া যায় তাতে আগামী দুই মাসের হাত খরচ উঠে আসে। একজন শিক্ষার্থীর জন্য এটা বড় পাওয়া। ঈগলু আইসক্রীমে কর্মরত সুমাইয়া বলেন, পড়াশুনার খরচ চালানো যায়।পরিবারের কাছে হাত পাততে হচ্ছে না। তাছাড়া, সার্টিফিকেটতো আছেই। এটা ভবিষ্যত জীবনের একটি বড় টার্নিং পয়েন্ট।

চাকরিদাতা প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তারা বলছেন, বাণিজ্যমেলা মানেই দেশের ভবিষ্যতের জন্য অন্তত কিছু লোকবল তৈরি করে ফেলা।

সর্বাধিক পঠিত