প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

চৌগাছার স্কুলছাত্র খুনির যাবজ্জীবন

যশোর প্রতিনিধি : যশোরের চৌগাছা উপজেলার গরিবপুর গ্রামের চতুর্থ শ্রেণির ছাত্র সৌরভ সাহা (১০) অপহরণ ও হত্যা মামলায় বিল্লাল হোসেন নামে একজনকে যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ড প্রদান করেছে আদালত। একই সাথে এক লাখ টাকা জরিমানার নির্দেশ দিয়েছেন । সোমবার দুপুরে যশোরের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইবুন্যাল-২ এর বিচারক মাহমুদা খাতুন এই রায় দেন। মামলায় সরকার পক্ষের কৌসুলি (পিপি) ইদ্রিস আলী এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

দণ্ডিত বিল্লাল হোসেন পলাতক থাকায় বিচারক তার বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারির নির্দেশ দিয়েছেন। বিল্লাল চৌগাছা উপজেলার পীতম্বরপুর গ্রামের সাখাওয়াৎ হোসেনের ছেলে।

মামলার বিবরণে জানা যায়, ২০১২ সালের ৯ জুলাই অপহৃত হয় সৌরভ সাহা। অপহরণকারীরা মোবাইল ফোনে তার পরিবারের কাছে মুক্তিপণ হিসেবে পাঁচ লাখ টাকা দাবি করে। এ ঘটনার পরদিন চৌগাছা থানায় অজ্ঞাত ব্যক্তিদের নামে একটি মামলা করেন সৌরভ সাহার বাবা স্বপন সাহা। এর পরের দিন ১১ জুলাই মোবাইল কললিস্ট ঘেঁটে বিল্লাল হোসন নামে একজনকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। তার দেওয়া তথ্য মতে গরিবপুর গ্রামের স্কুলের পাশের একটি পাটক্ষেত থেকে সৌরভের মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।

এরপর অপহরণ মামলার সঙ্গে হত্যার অভিযোগও যুক্ত করা হয়। সেইসঙ্গে জড়িত সন্দেহে আরো পাঁচজনকে গ্রেপ্তার করা হয়। তদন্ত শেষে ওই বছরই আদালতে ছয়জনের নামে চার্জশিট দাখিল করে পুলিশ।

মামলায় সরকারপক্ষের কৌঁসুলি অ্যাডভোকেট ইদ্রিস আলী জানান, অপহরণ ও মুক্তিপণ দাবির অপরাধে বিল্লাল হোসনকে যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ড ও ৫০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরো ছয় মাসের কারাদণ্ড এবং হত্যার দায়ে যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ড ও ৫০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরো ছয় মাসের কারাদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন বিচারক। এছাড়া মামলার অপর পাঁচ আসামির বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় তাদের রেহাই দেওয়া হয়। সম্পাদনা : তন্নীমা আক্তার

সর্বাধিক পঠিত