প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

আইসিসির নতুন নিয়মের বলিতে আক্ষেপে পুড়ছেন সহযোগী দেশের ক্রিকেটাররা

স্পোর্টস ডেস্ক : আসন্ন বিশ্বকাপের পর্দা উঠতে ইংল্যান্ডের মাঠে। আর এই বিশ্বকাপে আইসিসির অদ্ভুত নিয়মের বলি হয়ে বিশ্বকাপ খেলা থেকে বঞ্চিত হয়েছে সহযোগী অনেক দল, যারা নিয়মিতই প্রমাণ করছে সুযোগ পেলে তারাও করতে পারে ভালো কিছু। বিশেষ করে স্কটল্যান্ড, নেদারল্যান্ডস, জিম্বাবুয়ে, আয়ারল্যান্ডের মত দলগুলো বাড়িয়ে দেয় প্রতিযোগিতার আমেজ। দুর্দান্ত কিছু করে প্রতি আসরেই জানান দেয় তারাও পারবে। সেরা ১০ দল নিয়ে আয়োজন হতে যাওয়া বিশ্বকাপে নিজেদের অংশগ্রহণ বঞ্চিত হওয়ায় হতাশা প্রকাশ করেছেন সহযোগী দেশগুলোর ক্রিকেটাররা, কন্ঠে ঝরেছে আক্ষেপ।

যেকোনো ক্রিকেট খেলুড়ে জাতির চ‚ড়ান্ত সফলতাগুলোর মধ্যে বিশ্বকাপে অংশগ্রহণ করাটাও একটি। অন্যান্য খেলাধুলার জনপ্রিয়তা বৃদ্ধির লক্ষ্যে ওই খেলার সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রণ সংস্থাগুলো চেষ্টা করে সর্বোচ্চ দলের অংশগ্রহণ নিশ্চিত করতে। অথচ ক্রিকেটে এর উল্টো হাল। একবিংশ শতাব্দীর সবচেয়ে কম দল নিয়ে আয়োজন হচ্ছে আসন্ন এই বিশ্বকাপ।

আইসিসির এমন সিদ্ধান্তে শুরু থেকেই প্রতিবাদ জানিয়ে আসছেন শচীন টেন্ডুলকারের মত তারকা ক্রিকেটাররা। সহযোগী দেশগুলোর ক্ষোভ, হতাশাতো ছিলই। তবে এবার বিশ্বকাপের একদম সন্নিকটে এসে নিজেদের আক্ষেপ যেন ধরে রাখতে পারলেন না স্কটিশ দলপতি কাইল কোয়েটজার ও ডাচ ক্রিকেটার পিটার বোরেন। নিজেদের হতাশা উগরে দিলেন টুইটারে করা পোস্টে।

১৯৯৯ সালে বাংলাদেশের মত প্রথমবার বিশ্বকাপ খেলে স্কটল্যান্ড। ওই বিশ্বকাপই বদলে দিয়েছে দেশ দুটির ক্রিকেট মোড়। বাংলাদেশের মত শক্ত অবস্থানে পৌঁছাতে না পারলেও দেশটির তরুণ ক্রিকেটার অনুপ্রেরণা হিসেবে নেয় বিশ্বকাপকেই।

দলটির বর্তমান অধিনায়ক কাইল কোয়েটজার টুইটারে এ প্রসঙ্গে লিখেছেন, ‘২০ বছর আগে আমি স্কটল্যান্ডকে বিশ্বকাপ খেলতে দেখেছি যা আমার ক্রিকেট খেলার বড় অনুপ্রেরণা ছিল। আসন্ন বিশ্বকাপ নিয়ে লোকের আমেজ দেখে খুব ভালো লাগছে। তবে হতাশার বিষয় স্কটল্যান্ডসহ অন্যান্য প্রতিভাবান দলগুলো সুযোগ পাচ্ছেনা বিশ্ব ক্রিকেট কতটা উন্নত হয়েছে তা দেখানোর।’

নিয়মিত খেলার সুযোগ না পেয়েও ৫০ ম্যাচের ক্যারিয়ারে ৪ সেঞ্চুরি আর ১৩ ফিফটিতে ২০৮২ রান করা কোয়েটজার জানান দেয় বিশ্বমঞ্চে নিজেকে জাহির করার সুযোগ পেলে তারাও কতটা দিতে পারে। গত বিশ্বকাপে বাংলাদেশের বিপক্ষে ১৫৬ রানের ক্যারিয়ার সেরা ইনিংস খেলা কোয়েটজার ৬ ম্যাচে করেছেন ২৫৩ রান।

কদিন আগেই আইসিসি এবারের বিশ্বকাপে অংশ নেওয়া দলগুলোর অধিনায়কদের নিয়ে একটি অনুষ্ঠানের আয়োজন করে। যেখানে সব অধিনায়কদের একই ফ্রেমে বন্দী করে পোস্টও করা হয় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। আর টুইটারে ইএসপিএন ক্রিকইনফোর শেয়ার করা ছবিটি রিটুইট করে সাবেক নেদারল্যান্ডস অধিনায়ক পিটার বোরেন প্রকাশ করেছেন হতাশা।

ডাচদের হয়ে দুটি বিশ্বকাপ খেলা ৩৫ বছর বয়সী বোরেন মূলত অংশ নেওয়া দলগুলোর অধিনায়কদের সাথে বঞ্চিত সহযোগী দলের অধিনায়কদেরই মিস করেছেন তার দেওয়া পোস্টে। তিনি লিখেন, ‘এই ছবিটি আরও পূর্ণতা পেত যদি রোহান মোস্তফা (সংযুক্ত আরব আমিরাত), গ্রায়েম ক্রেমার (জিম্বাবুয়ে) উইলিয়াম পোর্টারফিল্ড (আয়ারল্যান্ড), কাইল কোয়েটজার (স্কটল্যান্ড), বাবর হায়াত (হংকং), পিটার সিলার (নেদারল্যান্ডস) এবং পরশ খাদকারা (নেপাল) এই ছবিটিতে থাকতো।’

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত